লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার উদ্দেশ্যে এবারও চরফ্যাসনের পিএসসি পরীক্ষার উত্তরপত্রে গাবলা - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :

লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার উদ্দেশ্যে এবারও চরফ্যাসনের পিএসসি পরীক্ষার উত্তরপত্রে গাবলা



শিশির হাওলাদার, ভোলা জেলা প্রতিনিধি, (খবর তরঙ্গ ডটকম)

গত বছরের মত এবারও ভোলার চরফ্যাশনে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সমাপনী পরীক্ষার উত্তরপত্র নিয়ে গাবলা করা হয়েছে। এবার বেশ কিছু উত্তরপত্রে কোড নাম্বার না দিয়েই অন্য উপজেলায় পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে মূল্যায়নের জন্য।

 

আবার কিছু উত্তরপত্রের উপরের অংশ ছেড়া হয়নি। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দাবি ভুলবশত এটা হয়েছে। তবে স্থানীয়দের অভিযোগ গত বছরের মত এবারও লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার উদ্দেশ্যে ইচ্ছাকৃতভাবে এটা করা হয়েছে। যাতে চরফ্যাসনের একটি নির্দিষ্ট স্কুলের উত্তরপত্র কোন উপজেলায় পাঠানো হয় তা সহজে জানা যায়।

 

সংশ্লিষ্ট সুত্রগুলোর অভিযোগ, চরফ্যাসন উপজেলার প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের যোগসাজসে একটি চক্র প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষার উত্তরপত্র মূল্যায়নের সময় লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার অপচেষ্টায় লিপ্ত থাকে। এবারও একই পদ্ধতিতে তারা উত্তরপত্র নিহ্নিত করার কৌশল অবলম্ভন করেছে। তারই অংশ হিসেবে উত্তরপত্রে কোড নাম্বার দেয়া হয়নি এবং কোড নাম্বার দেয়া উত্তরপত্রের উপরের অংশ (ওএমআর) ছেড়া হয়নি।

 

উত্তরপত্রগুলো দৌলতখান উপজেলায় যাওয়ার পর বিষয়টি জানা জানি হয়। পরে চরফ্যাসনের উপজেলা শিক্ষা অফিসার জালাল আহমেদসহ ওই সংশ্লিষ্ট চক্রের সদস্যরা এসে কোড নাম্বার লিখে দিয়েছে এবং ওএমআর ছিড়ে নিয়েছে। আর এই ফাঁকে যা করার তাই করা হয়েছে।

 

এ ব্যাপারে জানার জন্য চরফ্যাসন উপজেলা শিক্ষা অফিসারের মোবাইল নাম্বারে ফোন করে তাকে পাওয়া যায়নি। তবে দৌলতখান উপজেলার কর্মকর্তারা জানান, ভুল বশত এটা হয়েছে এবং চরফ্যাসন উপজেলা শিক্ষা অফিসার এসে তা সংশোধন করেছেন।


এ সম্পর্কিত আরো খবর

ভোলা এর অন্যান্য খবরসমূহ