শিব্বীর আহমেদ’র কবিতা ”বঙ্গবন্ধুর বজ্রকন্ঠ” নিয়ে খুব শিঘ্রই প্রকাশিত হচ্ছে গান ”বজ্রকন্ঠে স্বাধীনতা” - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :

শিব্বীর আহমেদ’র কবিতা ”বঙ্গবন্ধুর বজ্রকন্ঠ” নিয়ে খুব শিঘ্রই প্রকাশিত হচ্ছে গান ”বজ্রকন্ঠে স্বাধীনতা”



নিউইয়র্ক, (খবর তরঙ্গ ডটকম)
জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকী ও বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীকে সামনে রেখে লেখক সাংবাদিক শিব্বীর আহমেদের কবিতা ”বঙ্গবন্ধুর বজ্রকন্ঠ” অবলম্বনে খুব শিঘ্রই প্রকাশিত হচ্ছে গান ”বজ্রকন্ঠে স্বাধীনতা”। ১৯৭১ সালের উত্তাল রাজনৈতিক পটভুমী বঙ্গবন্ধুর সাত মার্চের ভাষন পঁচিশে মার্চের কালো রাত বঙ্গবন্ধুর স্বাধীনতার ঘোষনা পাকিস্তানী সামরিক বাহিনি কর্তৃক বঙ্গবন্ধু গ্রেফতার বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধ এবং এক সাগর রক্তের বিনিময়ে অর্জিত বিজয়ের পটভূমী নিয়ে রচিত একটি দেশপ্রেমমুলক জাগরনের গান ”বজ্রকন্ঠে স্বাধীনতা”। গানটি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং সকল বীর মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি উৎসর্গ করা হয়েছে।
”বজ্রকন্ঠে স্বাধীনতা” গানটির অডিও রেকর্ডিং ইতিমধ্যেই সম্পন্ন হয়েছে। গানটির সুর করেছেন জাতীয় পুরস্কার প্রাপ্ত সুরকার ও শিল্পী শফিক তুহিন। গানটিতে তিনি কন্ঠও দিয়েছেন। এছাড়াও গানটিতে কন্ঠ দিয়েছেন এ প্রজন্মের এনটিভি ক্লোজআপ তারকা শিল্পী কিশোর দাস ও চ্যানেল আই সেরাকন্ঠের শিল্পী রুমানা আকতার ইতি। এছাড়া গানটির কোরাসে কন্ঠ দিয়েছেন শিল্পী স্বরলিপি, সাজিদ, রাফি, রুকু, ইমরান, লুনা ও অয়ন। গানটিতে গীটার বাজিয়েছেন কেডী এবং পুরো গানটির মিউজিক ব্যবস্থাপনায় ছিলেন মানাম আহমেদ।
শিল্পী ও সুরকার শফিক তুহিন তার সুরের যাদুর জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন ২০১১ সালে। এছাড়াও তিনি সিটিসেল-চ্যানেল আই মিউজিক অ্যাওয়ার্ডস ২০০৬, ২০১১, এবং ২০১৩, বাংলাদেশ টেলিভিশন রিপোর্টস ইউনিট (সিজেএফবি), বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সাংবাদিক সমিতি (বাচসাস) পুরস্কার ২০০২, বাংলাদেশ কালচারাল রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন পুরস্কার ২০০৩, সিজেএফবি পুরস্কার ২০০৪, বিনোদন বিচিত্রা পারফরমেন্স পুরস্কার ২০১১, টেলিভিশন রিপোর্টাস অ্যাসোসিয়েশন পুরস্কার ২০০৭ সহ আরো অনেক পুরস্কার লাভ করেন।
এদিকে ২০১৪ সালে সেরা কন্ঠ রিয়েলিটি শো তারকা রুমানা আকতার ইতি। তার সুরেলা কন্ঠ দিয়ে তিনি ৫ম স্থান অধিকার করেছিলেন। তার প্রিয় আইডল দেশের জনপ্রিয় সঙ্গীত শিল্পী সামিনা চৌধুরীর হাত ধরে দারুন ভাবে সঙ্গীতের জাতীয় পর্যায় নিজেকে দাঁড় করিয়েছেন। সদা হাসিখুশি রুমানা আকতার ইতি তার অসাধারণ গায়কী কন্ঠ দিয়ে সকল শ্রোতার অন্তরে দারুনভাবে জায়গা করে নিয়েছেন তিনি।
কিশোর দাস ক্লোজআপ ওয়ান তারকা শিল্পী। চট্টগ্রামের ছেলে কিশোর ছোটবেলা থেকে কিশোর তবলা ভালো বাজাতেন। পাঁচ বছর তবলা বাজানো শিখেছেন। এর পাশাপাশি গানের চর্চাও চালিয়ে গেছেন। স্কুলে পড়াকালীন এলাকায় গানের বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে প্রথম হতেন তিনি। ওস্তাদ মিহির লালা, ওস্তাদ প্রকাশ চন্দ্র শীল- এর কাছে উচ্চাঙ্গ সঙ্গীতের ওপর তালিম নেন কিশোর। সংগীতের প্রতি ভালোবাসার কারণে ঢাকার মগবাজারে নিজের মতো করে গড়ে তুলেছেন কম্পোজ স্ট্যান্ড নামের গানের স্টুডিও। ক্লোজআপ ওয়ান প্রতিযোগিতার পর নিজের তিনটি একক অ্যালবাম ছাড়াও ২০টি চলচ্চিত্রের গানে কণ্ঠ দিয়েছেন কিশোর। গেয়েছেন ২৩টি নাটকের টাইটেল সং।
গানটি নির্মানে বিভিন্ন ভাবে সহযোগীতার জন্য আতিকুর রহমান, আকবর হায়দার কিরন, মিনহাজ আহমেদ, স্বাধীনবাংলা বেতারকেন্দ্রের শিল্পী শহীদ হাসান, মনিরুল হক, জোবেদা লুনা, ফখরুল ইসলাম কামাল, রবিউল ইসলাম, মেহবুবা আক্তার, সাজিদুল হক, সেলিনা আক্তার লিজা, শহিদুল হক, জুবায়ের খান ও মুশফিকুল ইসলাম সহ আরো অনেকের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন লেখক সাংবাদিক শিব্বীর আহমেদ।
বর্তমানে গানটির ভিডিও নির্মান কাজ চলছে। শিব্বীর আহমেদের নির্দেশনা ও পরিচালনায় বঙ্গবন্ধু সহ মুক্তিযুদ্ধের বিভিন্ন ফুটেজ ছবি সংগ্রহ ও সংযোজনের কাজ করছেন এক সময়ের চলচ্চিত্র জগতের ভিডিও নির্মাতা আবদুল্লা চৌধুরী। খুব শিঘ্রই গানটি বিশ^ব্যাপী রিলিজ করা হবে বলে জানিয়েছেন লেখক সাংবাদিক শিব্বীর আহমেদ।