রামগঞ্জে বিদ্যালয়ে ওয়াশব্লক ভাংচুরের প্রতিবাদে মানববন্ধন - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :

রামগঞ্জে বিদ্যালয়ে ওয়াশব্লক ভাংচুরের প্রতিবাদে মানববন্ধন



লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি, (খবর তরঙ্গ ডটকম)

রামগঞ্জ পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নির্মানাধীন ওয়াশ ব্লক ভাংচুরের প্রতিবাদে মঙ্গলবার দুপুরে পৌর বাইপাস সড়কে শিক্ষার্থীরা মানব বন্ধন করে। এসময় প্রতিষ্ঠানের ব্যবস্থাপনা কমিটি,অবিভাবক ও শিক্ষার্থীরা পৌর মেয়রকে ধিক্কার এবং তার গুন্ডা বাহিনীর শাস্তির দাবী জানিয়ে বক্তব্য দেওয়ায় হয়।

 

মানব বন্ধনে বক্তব্য রাখেন মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সভাপ্রতি ও রামগঞ্জ পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক একেএম মঞ্জুরুল হক ফারুক সহ সহকারী শিক্ষক,অবিভাবক ও শিক্ষার্থীরা। সুত্রে জানায়,লক্ষ্মীপুর জেলা পরিষদের চলতি অর্থবছরে ২লক্ষ ৫০ হাজার ব্যয়ে রামগঞ্জ পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ওয়াশ ব্লক নির্মান কাজ শুরু হয়। মঙ্গলবার সকাল থেকে কাজ শুরু হলে কয়েকজন উৎশৃখল ব্যক্তি শ্রমিকদের মারধর করে উপকরন নিয়ে নির্মাধীন ওয়াশ ব্লক ভাংচুর করে।

 

প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক একেএম মঞ্জুরুল হক ফারুক বলেন, ওয়াশ ব্লক কাজ শুরু করার পর পৌর মেয়র আবুল খায়ের পাটোয়ারী অফিস স্টাফ পাঠিয়ে বাধা দেওয়া এবং ২৭ সেপ্টেম্বর পরিবেশ আইনে মামলা দেওয়ার হুমকি দিয়ে নোটিস জারী করে। মঙ্গলবার সকালে শ্রমিকেরা কাজ শুরু করলে মেয়র ক্ষীপ্ত হয়ে অফিসের লোকজন পাঠিয়ে ভাংচুর করে শ্রমিকদের উপকরন নিয়ে যায়।

 

সাবেক পৌর মেয়র বেলাল আহমেদ বলেন,মেয়র আবুল খায়ের পাটোয়ারী প্রতিষ্ঠানের ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি হতে না পারায় ক্ষীপ্ত হয়ে ন্যাক্কাজনক কাজ করেছে। সৃষ্ট ঘটনা মেয়র আবুল খায়ের পাটোয়ারী বলেন,পৌর মেয়র এর অফিস কক্ষ সংলগ্ন স্থানে পৌর কতৃপক্ষের অনুমতি না নিয়ে সরকারী নিদের্শ উপেক্ষা করে ওয়াশ ব্লকের কাজ করছে। প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক ব্যক্তি স্বার্থ হাসিল করার জন্য পুর্ব পরিকল্পিত ভাবে ভাংচুরের নাটক সাজিয়ে ব্যানার দিয়ে পৌর গেটের সামনে সড়কে মানব বন্ধন করে। প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা মেয়ে হওয়ায় নিজেকে নিয়ন্ত্রনে রেখেছি।


এ সম্পর্কিত আরো খবর

লক্ষীপুর এর অন্যান্য খবরসমূহ
লক্ষ্মীপুর এর অন্যান্য খবরসমূহ
পূর্বের সংবাদ