জামায়াত আরেকটি রাষ্ট্র ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা কারার চেষ্টা করছে: সৈয়দ আশরাফ

  আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও স্থানীয় সরকারমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন, নৈরাজ্য সৃষ্টি করে জামায়াত দেশের গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা ভেঙ্গে দিতে চায়। এর মাধ্যমে তারা আরেকটি রাষ্ট্র ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা কারার চেষ্টা করছে। আওয়ামী লীগ তা কখনও হতে দেবে না।

বুধবার আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর ধানমন্ডি কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

বিএনপিকে সাম্প্রদায়িক দল আখ্যা দিয়ে আওয়ামী লীগ মুখপাত্র বলেন, বিএনপি দেশে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা বাঁধানোর চেষ্টা করছে। কিন্তু বাংলাদেশে কোনো সাম্প্রদায়িক শক্তিকে মাথা তুলে দাঁড়াতে দেয়া হবে না।

দেশের চলমান সংঘাতময় পরিস্থিতি প্রসঙ্গে সৈয়দ আশরাফ বলেন, দেশে এমন কোনো পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি যার জন্য সেনাবাহিনী মোতায়ন করতে হবে।

ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির সঙ্গে বিরোধীদলীয় নেতা খালেদা জিয়ার বৈঠক বাতিলের বিষয়ে তিনি বলেন, বিএনপিতে এর সুদূর প্রসারী প্রভাব পড়বে।

সৈয়দ আশরাফ বলেন, চলমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি সরকার তার নিজস্ব সম্পদ ও কৌশল দিয়ে মোকাবেলা করবে। সরকার এখনও দক্ষতার সঙ্গে সঠিক অবস্থানে রয়েছে।

জামায়াত-শিবির মোকাবেলায় আওয়ামী লীগ মাঠে থাকবে কিনা- সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমরা জনগণ। তাই আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে সহযোগিতা করতে পারি।’

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডা. দীপু মনি, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী প্রমুখ।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।