কুবিতে ছুটির দিনেও পরীক্ষা হতে দেয় নি আন্দোলনকারীরা,অনুষদে তালা

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাপ্তাহিক ছুটির দিন শনিবার কয়েকটি বিভাগের সেমিষ্টার ফাইনাল পরীক্ষা  ও মিট-র্টাম পরীক্ষা হতে দেয়া হয় নি। গতকাল শনিবার বাংলা বিভাগের ১ম ব্যাচের সেমিষ্টার ফাইনাল ও লোক-প্রসাশন, হিাসাব বিজ্ঞানসহ বেশ কয়েকটি বিভাগের মিড-র্টাম পরীক্ষা হবার কথা ছিল। শনিবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ এ শিক্ষকের বিরুদ্ধে ফলাফল নিয়ে দূর্নীতির অভিযোগ এনে অনুষদ ভবন গুলোতে তালা লাগিয়ে দেওয়ার কারনে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয় নাই।  তবে ছাত্রলীগ দাবি করছে যে, এটা সকল সাধারন শিক্ষার্থীদের দাবি আমরা শুধু তাদের সাথে একাত্বতা জানিয়েছে। তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষকের বিরুদ্ধে অবৈধ ভাবে ইনর্কোসে নম্বর দেওয়ার অভিযোগে গত মঙ্গলবার থেকে ক্যাম্পাসে মিছিল ও অনুষদে তালাসহ বিক্ষোভ করে আসছে। গত ৪এপ্রিল কুমিল্লার পাদুয়ার বাজার এলাকায় রেল লাইনের ফিসপ্লেট খুলে ভয়াবহ রেল  নাশকতার সন্দেহভাজন আসামী হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক-প্রশাসন বিভাগের ৫ম ব্যাচের শিক্ষাথী ও শিবির কর্মী মোঃ আতাউল্ল্হ বোখারিকে গ্রেফতার করা হয়। তার কোর্স শিক্ষক ও বিভাগের শিক্ষক সহকারী অধ্যাপক মসিউর রহমান গত ১ মে প্রকাশিত  ইনকোর্সের ফলাফলে আতাউল্ল্হ বোখারিকে অবৈধ ভাবে পাশ করিয়ে দেন তবে অনুষ্ঠিত ইনকোর্স পরীক্ষায় ঐ ছাত্র (গত ২৮-২৯এপ্রিল) উপস্থিত ছিলেন না। গত ১৫ এপ্রিল রেল নাশকতা মামলায় আটক আতাউল্লাহ বোখারি গতকাল শনিবার পর্যন্ত কুমিল্লা কারাগারে আছেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহবায়ক সৈয়দ শাহরিয়া মাহমুদ বলেন,“ আমরা সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে ঐ শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা নেওয়া দাবি জানিয়ে আসছি, যতদিন না এর কোন সুরাহা হবে ততদিন পর্যন্ত আমাদের আন্দোলন চলবে।” তিনি ঐ শিক্ষকের বিরুদ্ধে অনেক স্বাধীনতা বিরোধী কথা বলার আভিযোগ আনেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ড. তৈহিদুল ইসলাম বলেন, “ তদন্ত চলছে আগামী দু-এক দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন পাওয়া যাবে।” তবে অভিযুক্ত শিক্ষক বলেন, ভুলবসত খসড়া ফলাফলে এমনটি হয়েছিল তবে চুড়ান্ত ফলাফলে সংশোধন করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে একটা মহল ষড়যন্ত্র করে এমনটি করছে বলে তিনি দাবি করেন।


সম্পাদনা: শামীম ইবনে মাজহার,নিউজরুম এডিটর

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।