জিয়াকে ‘রাজাকার’ বলায় জাতীয় সংসদ উত্তপ্ত

মরহুম রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে ক্ষমতাসীন আওয়ামীল লীগের এক সংসদ সদস্য ‘রাজাকার’ বলে মন্তব্য করলে সংসদ উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। রাতে সংসদের বৈঠকে ২০১৩-১৪ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় অংশ নিয়ে সংসদ সদস্য কবীরুল হক বলেন,“ জিয়াউর রহমান রাজাকার ছিলেন।” এ সময় বিরোধী দলের সদস্যরা তীব্র প্রতিবাদ জানান এবং ওই বক্তব্য এক্সপাঞ্জের দাবি জানান।

কবীরুল হকের বক্তব্য চলাকালীন বিএনপির সিনিয়র সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার জমিরউদ্দিন সরকারসহ বিরোধী দলের আরও কয়েকজন সদস্য দাঁড়ান। কবীরুল হকের বক্তব্য শেষ হলে স্পিকারের আসনে থাকা ডেপুটি স্পিকার শওকত আলী জমিরউদ্দিন সরকারকে মাইক দেন।

জমিরউদ্দিন সরকার ডেপুটি স্পিকারকে লক্ষ্য করে বলেন, ‘‘জিয়াউর রহমান কেবল একজন মুক্তিযোদ্ধাই ছিলেন না,  তিনি ছিলেন বীরউত্তম। অথচ একজন নতুন সংসদ সদস্য বলছেন জিয়াউর রহমান রাজাকার ছিলেন। মাননীয় স্পিকার আপনি নিজেও একজন মুক্তিযোদ্ধা। সুতরাং এই বক্তব্য শুধু জিয়াউর রহমানের জন্যই নয়, বরং আপনার জন্যও অপমানজনক।’’ তিনি ওই বক্তব্য এক্সপাঞ্জের দাবি জানান।

ডেপুটি স্পিকার জানান, তিনি বক্তব্য পরীক্ষা করে দেখবেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।