মান্নানকে বিজয়ী করার জন্য ভোটারদের প্রতি আহ্বান জামায়াত ও শিবিরের

জামায়াতে ইসলামী ও ইসলামী ছাত্রশিবির গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ১৮ দলীয় জোট সমর্থিত প্রার্থী অধ্যাপক এমএ মান্নানকে বিজয়ী করার জন্য ভোটারদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

বুধবার আলাদা বিবৃতিতে জামায়াতে ইসলামী এবং এর ছাত্রসংগঠন ইসলামী ছাত্রশিবির এই আহ্বান জানায়।

বিবৃতিতে জামায়াতের ভারপ্রাপ্ত আমির মকবুল আহমাদ বলেন, অধ্যাপক এমএ মান্নানকে ভোট দিয়ে বিজয়ী করার জন্য গাজীপুরের সর্বস্তরের জনগণ নির্বাচনী মাঠে নেমেছে। ১৮ দলীয় জোট সমর্থিত প্রার্থীর পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, এ গণজোয়ার দেখে সরকারি দলের লোকেরা এমএ মান্নানের বিজয় ঠেকাতে নানা ষড়যন্ত্রের আশ্রয় নিয়েছে। আওয়ামী লীগের নেতা তোফায়েল আহমেদসহ ১৪ দলের বহু নেতা গাজীপুরে অবস্থান করে প্রশাসনকে ব্যবহার করে নির্বাচনে প্রভাব বিস্তারের অপচেষ্টা চালাচ্ছে।

‘সরকারি প্রশাসনের নিরপেক্ষতা বিনষ্ট করে এক শ্রেণীর কর্মকর্তা ও কর্মচারী সরকারের সমর্থিত প্রার্থীর পক্ষে কাজ শুরু করেছে। এমনকি প্রশাসনের কর্মকর্তাদের সাথে ১৪ দলীয় জোটের নেতাদের গোপন বৈঠকের খবরও পাওয়া গিয়েছে’ দাবি করেন জামায়াতের আমির।

তিনি আরো অভিযোগ করেন, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে ১৪ দলের সমর্থিত প্রার্থীকে কারচুপি ও জবরদস্তি করে বিজয়ী করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর অফিসে একটি কন্ট্রোল রুম খোলার খবরও পাওয়া গিয়েছে। আওয়ামী লীগের দলীয় লোকদের বিভিন্ন ভোট কেন্দ্রে প্রিজাইডিং অফিসার নিয়োগ দেয়ার খবরও পাওয়া যাচ্ছে।

গাজীপুর সিটি করপোরশনের নির্বাচন যাতে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষভাবে অনুষ্ঠিত হতে পারে সে ব্যাপারে এখনই যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণ করার জন্য নির্বাচন কমিশনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন মকবুল আহমাদ।

তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, গাজীপুর সিটি নির্বাচনে অবৈধ হস্তক্ষেপ করে ফলাফল পাল্টানোর চেষ্টা করা হলে জনগণ সরকারকে উপযুক্ত জবাব দিবে এবং গাজীপুর থেকেই সরকার পতনের এক দফা আন্দোলন শুরু হবে।

এদিকে, ইসলাম ও জাতীয়তাবাদী মূল্যবোধে বিশ্বাসী ১৮ দলীয় প্রার্থী এমএ মান্নানকে বিজয়ী করতে তরুণ ভোটার সর্বোপরী গাজীপুরবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন শিবির সেক্রেটারি জেনারেল আবদুল জাব্বার।

তিনি বলেন, ‘গাজীপুরের তরুণ সমাজ সরকারের ইসলাম বিরোধী ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে সবসময় সোচ্চার ভূমিকা পালন করে আসছে। এবারও তারা ইসলাম বিদ্বেষী ও আলেম-ওলামা হত্যাকারীদের ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করে ইসলাম ও দেশ রক্ষায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবেন।’

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।