শনিবার, অক্টোবর 16, 2021
শনিবার, অক্টোবর 16, 2021
শনিবার, অক্টোবর 16, 2021
spot_img
Homeজেলামাদারীপুরে ধর্ষণের দায়ে যুবকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

মাদারীপুরে ধর্ষণের দায়ে যুবকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার পূর্ব স্বরমঙ্গল গ্রামের এক হিন্দু কিশোরীকে অপহরণের পর ধর্মান্তরিত করে ভুয়া বিয়ে ও ধর্ষণের দায়ে এক যুবকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড এবং সহযোগিতার অভিযোগে এক নারীসহ পাঁচজনের যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

মাদারীপুরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ মো. নূরুল ইসলাম মঙ্গলবার সকালে এই রায় দেন। মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি হলো রাজৈর উপজেলার পূর্ব স্বরমঙ্গল গ্রামের রশিদ কাজীর ছেলে রফিকুল কাজী ওরফে রফিক। ১৫ বছর করে দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলো মোহন মিয়া, নূরু কাজী, মাসুদ কাজী, খলিল হাওলাদার ও রুনা বেগম।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে প্রকাশ, ২০০৯ সালের ২৭ ডিসেম্বর অভিযুক্তরা টেকেরহাট বন্দরের এক ব্যবসায়ীর মেয়ে (মুকুল চন্দ্র দাসের মেয়ে পিংকি দাস ওরফে পায়েল) স্থানীয় শহীদ সরদার শাহজাহান উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে অপহরণ করে সিলেটে নিয়ে যায়।

সেখানে নিয়ে জোর করে ধর্মান্তরিত করে একটি ভুয়া কাবিনে সই নিয়ে ভুয়া বিয়ে করে অপহৃত কিশোরীকে ধর্ষণ করে। নয় দিন পর পুলিশ ওই কিশোরীকে উদ্ধার করে। এই ঘটনায় মেয়েটির বাবা বাদী হয়ে ছয়জনকে আসামি করে রাজৈর থানায় একটি মামলা দায়ের করে। দীর্ঘ তদন্ত শেষে পুলিশ আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। উপযুক্ত সাক্ষ্য-প্রমাণ শেষে বিজ্ঞ বিচারক ঘটনার সহযোগিতার অভিযোগে মোহন মিয়া, নূরু কাজী, মাসুদ কাজী, খলিল হাওলাদার ও রুনা বেগমকে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৭/৩০ ধরায় প্রত্যেককে ১৫ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড এবং ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরো দুই বছরের সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেন।

এ ছাড়া মূল অভিযুক্ত রফিকুল কাজী ওরফে রফিককে  জোর করে ধর্মান্তরিত করার অভিযোগে ১৫ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড এবং ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরো দুই বছরের সশ্রম কারাদণ্ড এবং ধর্ষণের অভিযোগে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৭ (৩০) ও ৯ (১) ধারায় যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড এবং ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরো দুই বছরের সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেন।

মাদারীপুর আদালতের পিপি সুজিত চ্যাটার্জী বাপ্পী জানান, বিচার শেষে ছয় আসামিকেই মাদারীপুর জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।


সম্পাদনা: শামীম ইবনে মাজহার,নিউজরুম এডিটর

RELATED ARTICLES
- Advertisment -spot_img

Most Popular

Recent Comments