রবিবার, অক্টোবর 24, 2021
রবিবার, অক্টোবর 24, 2021
রবিবার, অক্টোবর 24, 2021
spot_img
Homeজেলাকর্মকর্তারা ঘুমিয়ে আছেন: রায়পুরে ৫৫টি স’মিলের কারণে পরিবেশ দূষিত হচ্ছে

কর্মকর্তারা ঘুমিয়ে আছেন: রায়পুরে ৫৫টি স’মিলের কারণে পরিবেশ দূষিত হচ্ছে

লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলায় সরকারি নির্দেশ অমান্য করে  ৫৫টি স’মিল (করাতকল) বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সামনে স্থাপন করে অসাধু ব্যবসায়ীরা প্রায় ২০ বছর ধরে ব্যবসা চালিয়ে আসছেন। এতে করে পরিবেশ যেমন দূষিত হচ্ছে তেমনি প্রতিষ্ঠানগুলোর কার্যক্রম চরম বিঘœ ঘটছে বলে অভিযোগ গেলেও কর্মকর্তারা ঘুমিয়ে আছেন।
সরকারি গেজেটে নির্দেশনায় বলা আছে, কোনো সরকারি অফিস আদালত, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, হাসপাতাল, স্বাস্থ্য কেন্দ্র, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান, বিনোদন পার্ক এবং জনস্বাস্থ্য বা পরিবেশের বিঘœ সৃষ্টি করে তা ন্যূনতম ২০০ মিটারের মধ্যে স’মিল স্থাপন করা যাবে না। কিন্তু এ আইন অমান্য করে রায়পুরের অসাধু ব্যবসায়ীরা বছরের পর বছর এ অবৈধভাবে প্রতিষ্ঠানগুলোর সামনে গড়ে ওঠা স’মিলগুলো চালাচ্ছে।
রায়পুর উপজেলা বন বিভাগ সূত্রে জানা যায়, পৌরসভার ৭টি স’মিলসহ উপজেলার ৫৫টি স’মিল চালু আছে। এদের মধ্যে উপজেলা পরিষদ সড়কে মার্চ্চেন্টস একাডেমীর সামনে ৪টি স’মিল, পশু সম্পদ কার্যালয়ের সামনে ২টি স’মিল, উপজেলা পরিষদ ডাকবাংলো ও পানি উন্নয়ন বোর্ড কার্যালয়ের সামনে ৩টি, কাজীরদিঘির পাড় উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে ১টি, মোল¬ারহাট উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে ১টি, মিতালি বাজার মডেল একাডেমির সামনে ৪টিসহ উপজেলার ১০টি ইউনিয়নের বিভিন্ন স্থানে মোট ৫৫টি অবৈধ স’মিল চালু রয়েছে।
স’মিলের ব্যাবসায়ী হেদায়েত উল্যা মাষ্টার, রুহুল আমিন, খোরশেদ আলম ও মনির হোসেন জানান, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ বিভিন্ন অফিস আদালতের সামনে স’মিল করা যাবেনা এবিষয়টি আমাদের জানা ছিলনা।
রায়পুর মার্চ্চেন্টস একাডেমী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ আলী পাটওয়ারীসহ কয়েকজন ব্যবসায়ী জানান, বিদ্যালয়সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সামনে স’মিল না করার জন্য সরকারি প্রজ্ঞাপনটি তাদের জানা ছিলনা। এখন জানতে পেরে তারা বন কর্মকর্তাসহ সংশি¬ষ্ট বিভাগের কর্মকর্তাদের কাছে অবৈধ স’মিল উচ্ছেদের ব্যাপারে আবেদন জানাবেন।
এ বিষয়ে রায়পুর উপজেলা বন বিভাগের রেঞ্জ কর্মকর্তা আবদুল মান্নান পাটওয়ারী জানান, পৌরসভাসহ বিভিন্ন স্থানের অবৈধভাবে চালু থাকা স’মিলগুলো বন্ধ করার ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।


সম্পাদনা: শামীম ইবনে মাজহার,নিউজরুম এডিটর

RELATED ARTICLES
- Advertisment -spot_img

Most Popular

Recent Comments