৩ বাংলাদেশীর লাশ হস্তান্তর করেছে ভারত

ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যে স্থানীয় লোকজনের হাতে নিহত তিন বাংলাদেশীর লাশ সোমবার রাত আটটার দিকে হস্তান্তর করেছে ভারত। হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার কেদারকোর্ট সীমান্তের ১৯৬৬ নম্বর পিলারের ১ নম্বর সাব-পিলার দিয়ে এ লাশগুলো হস্তান্তর করা হয়।

নিহত ব্যক্তিরা হলেন হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার সাদ্দাম বাজারের সিদ্দিক আলী (৬৫), একই উপজেলার ওসমানপুর গ্রামের আনোয়ার আলী (৩২) ও সুন্দর আলী (৩০)।

বাংলাদেশের পক্ষে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) শ্রীমঙ্গল ক্যাম্পের ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে. কর্নেল চৌধুরী সাইফ উদ্দিন কাউসার ও চুনারুঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অমল্য কুমার চৌধুরী লাশ গ্রহণ করেন। এ সময় ভারতের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) ১০ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক নরেন্দ্র বাজপেয়ী ও পুলিশ ইন্সপেক্টর নারায়ণ চক্রবর্ত্তীসহ কর্মকর্তারা।

প্রসঙ্গত, হবিগঞ্জের চুনারুঘাট এলাকার বাল্লা সীমান্তের ৭৬৭ নম্বর পিলার দিয়ে রোববার ভোর রাতে পাঁচজন ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যে ঢোকেন। গরুচোর সন্দেহে খোয়াই শহরের মজুমদার টিলা এলাকার বাসিন্দারা ধারালো অস্ত্র দিয়ে তাদের কুপিয়ে হত্যা করে।

এদিকে তিন বাংলাদেশীকে পিটিয়ে হত্যা করার তীব্র নিন্দা জানিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। সোমবার মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে একথা জানানো হয়েছে। এতে বলা হয়, বাংলাদেশীদের হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ভারতীয় কর্তৃপক্ষ তাদের কয়েকজন নাগরিককে গ্রেফতার করেছে। বাংলাদেশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও দিল্লিতে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসের মাধ্যমে বিষয়টির ওপর নজর রাখা হচ্ছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।