লাকসাম-মনোহরগঞ্জে ৫১টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক পদ শূন্য

কুমিল্লার লাকসাম-মনোহরগঞ্জে ৫১টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক পদ শূন্য থাকায় পাঠ দান ব্যাহত হচ্ছে । এছাড়া লাকসামে ১৯টি ও মনোহরগঞ্জে ৭০টি সহকারী শিক্ষকের পদসহ ৮৯টি পদ দীর্ঘদিন থেকে শূন্য রয়েছে। এতে হুমকির মুখে পড়েছে উপজেলার প্রাথমিক শিক্ষা ব্যবস্থা।

 
উপজেলা শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা যায়, লাকসামে ৭৮টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মধ্যে প্রধান শিক্ষক ১০টি ও সহকারী শিক্ষক ১৯ টি পদ শূন্য রয়েছে।

 
এছাড়াও মনোহরগঞ্জে ১০২টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মধ্যে ৪১টি প্রধান শিক্ষক ও ৭০টি সহকারী শিক্ষক পদ দীর্ঘদিন শূন্য।

 
লাকসামে আউশপাড়া, বামন্ডা, ফুলহরা, রাজাপুর, কাগৈয়া, নাড়িদিয়া, কৃষ্ণপুর, মেল্লা, শ্রীয়াং, পরানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহ ১০টি প্রধান শিক্ষক ও ১৯টি সহকারী শিক্ষক পদ দীর্ঘদিন যাবৎ শূন্য।
এ দিকে মনোহরগঞ্জ উপজেলায় বুরপিষ্ট, হাওড়া, উদাইশ, মান্দারগাঁও, বড় চাঁদপুর, সরশপুর, সাহাপুর, ভাউপুর, মনিপুর, নরপাইয়া, বাদুয়াড়া, দৈয়ারা, পোমগাঁও, মৈশাতুয়া, হাজীপুরা, শমসেরপুর, খরখরিয়া, কান্দিরপাড়, লক্ষণপুর, তাহেরপুর, বরল্ল্যা, ফেনুয়া, পরানপুর, ডুমুরিয়া, নোয়াগাঁও, জনতাবাজার, সাহাপুর পশ্চিম, ভাউপুর পূর্ব, শ্রীপুর, মির্জাপুর, নরহরিপুর, দক্ষিণ নারায়নপুর, বানঘর, হাতিয়ামুড়ী পশ্চিম, ঠেংগারবাম, উলুপাড়া, দক্ষিণ ফেনুয়া, বড় উত্তর হাওলা, নারারপাড়, বাতাচৌঁ, কাঁচি উত্তর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহ ৪১টি প্রধান শিক্ষক পদ শূন্য।

 
এদিকে বর্তমান সরকার ১৫’শ নতুন বিদ্যালয় স্থাপন প্রকল্পের আওতায় মৈশাতুয়া ইউনিয়নের ছিখুটিয়া ও হাসনাবাদ ইউনিয়নের কাইশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক পদ শূন্য রয়েছে।
জানা গেছে, শিক্ষকদের বদলী, অবসর গ্রহন, মৃত্যুবরণ, চাকুরী পরিত্যাগ সহ বিভিন্ন কারণে শূন্য পদের সংখ্যা বেড়েই চলছে। এতে করে শিশুদের পাঠ দানের ব্যবস্থা বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে।

 
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক লাকসাম-মনোহরগঞ্জের একাধিক অভিভাবক জানান, সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার মান নাজুক হয়ে পড়ায় শিশুদের ভবিষ্যত চিন্তা করে বে-সরকারী নামিদামী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিশুদেরকে ভর্তির চিন্তা করছি।

 
লাকসাম উপজেলা শিক্ষা অফিসার মাখন লাল নাথ জানান, প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষক পদের শূন্য তালিকা শিক্ষা মন্ত্রানালয় সহ উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নিকট পাঠানো হয়েছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।