শুক্রবার, অক্টোবর 22, 2021
শুক্রবার, অক্টোবর 22, 2021
শুক্রবার, অক্টোবর 22, 2021
spot_img
Homeউপজেলাসোনাগাজীতে প্রতিবাদ সভায় এমপি রহিম উল্যাহর ফাঁসি ও ওসির প্রত্যাহার দাবী ॥...

সোনাগাজীতে প্রতিবাদ সভায় এমপি রহিম উল্যাহর ফাঁসি ও ওসির প্রত্যাহার দাবী ॥ আবারও প্রশাসনকে ৭২ঘন্টার আল্টিমেটাম

সোনাগাজীতে কুখ্যাত এমপি রহিম উল্যাহ র লালিত সন্ত্রানী বাহিনী কর্তৃক যুবলীগ নেতা আজিজুল হককে  হত্যা প্রতিবাদে উপজেলা আ’লীগের উদ্যোগে পৌর শহরের জিরো পয়েন্টে শনিবার বিকেলে বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ  সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

সভায় বক্তারা যুবলীগ নেতা আজিজুল হক হত্যা কান্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে স্থানীয় স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য হাজী রহিম  উল্যাহর ফাঁসি ও হত্যাকান্ডের ৬ দিন অতিবাহিত হওয়ার পরও কোন আসামীকে গ্রেফতার করতে না পারায় এমপি রহিম উল্যাহর মদদপুষ্ট ওসি নবীর হোসেন সহ পুলিশ প্রশাসনের সোনাগাজীতে দায়িত্বরত কর্মকর্তাদের প্রত্যাহার দাবি করেন। এছাড়াও স্থানীয় বক্তারা প্রশাসনকে যুবলীগ নেতা হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারে আবারো ৭২ ঘন্টার আল্টিমেটাম দেন।

 

উপজেলা আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রুহুল আমিনের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা আ’লীগের সভাপতি ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুর রহমান বি.কম, বিশেষ অতিথি ছিলেন সোনাগাজী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আ’লীগের সাবেক সভাপতি জেড.এম. কামরুল আনাম, ফেনী সদর উপজেলা আ’লীগের সভাপতি করিম উল্যাহ বি.কম, জেলা যুবলীগের আহবায়ক ও দাগনভুঁঞা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান দিদারুল কবির রতন, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক শুসেন চন্দ্র শীল, নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী, জেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি সামছুদ্দোহা দুলাল প্রমুখ।

 

উপজেলা যুবলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি জামাল উদ্দিনের  পরিচালনায় সভায় আরো বক্তব্য রাখেন সোনাগাজী উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. রফিকুল ইসলাম খোকন, যুগ্ম সম্পাদক আমিরাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান জহিরুল আলম জহির, সদর ইউপি চেয়ারম্যান সামছুল আরেফিন, বগাদানা ইউপি চেয়ারম্যান সাখাওয়াতুল হক বিটু, পৌর আ’লীগ সভাপতি ইমাম উদ্দিন সেলিম পাটোয়ারী,  উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আজিজুল হক হিরণ, সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম ভুট্টু, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ছালাহ উদ্দিন ফিরোজ, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শহাদাত হোসেন রিন্টু  সোনাগাজী উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি ফারুক হোসেন, কৃষক লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল মন্নান, উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন রিপন, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাঈদুল হক, সাধারণ সম্পাদক আবদূল মোতালেব রবিনসহ জেলা উপজেলার আ’লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। সভায় স্থানীয় বক্তারা পূর্বের ন্যায় আবারো সোনাগাজীতে এম.পি রহিম উল্যাহকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করেন।

 

এমনকি বার বার আ’লীগ নেতাকর্মীদের হত্যা করার পরিকল্পনা করার জন্য এবং নেতাকর্মীদের উপর হামলা-মামলা ও বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে তার ফাঁসি ও গ্রেফতার দাবি করেন। যুবলীগ নেতা আজিজুল হকের হত্যাকারী হাজী রহিম উল্যাহ সহ তার লালিত সন্ত্রাসীবাহিনীর গ্রেফতার ও ফাঁসি দাবি করে প্রশাসনকে আবারো ৭২ ঘন্টার আল্টিমেটাম দেন।

 

এ দিকে সভায় জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী যুবলীগ নেতা আজিজুল হকের হত্যাকান্ডের ঘটনায় প্রশাসনকে কঠোর হুশিয়ারি দিয়ে বলেন, হাজী রহিম উল্যাহর মদদপুষ্ট কোন কর্মকর্তার সোনাগাজী তথা ফেনীর মাটিতে স্থান হবে না। যেখানে রহিম উল্যাহ সেখানে প্রতিরোধের ঘোষণা দেন।

 

এমন কি তিনি হাজী রহিম উল্যাহর ফাঁসি দাবি করে ৩ দিনের মধ্যে তার মদদ পুষ্ট ওসি নবীর হোসেনের প্রত্যাহারের দাবি করেন। অন্যথায়, ফেনী সহ পুরো জেলা অচল করে দেয়ার হুমকি দেন। জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক সুশেন চন্দ্র শীল তার বক্তব্যে বলেন, রিক্সা চালক থেকে প্রবাসী নেতা অত:পর এম.পি. হয়ে রহিম উল্যাহ এখন সোনাগাজীকে অশান্ত করে সন্ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করার পায়তারা করছে। সোনাগাজীর কোথাও রহিম উল্যাহর নাম থাকবে না। যুবলীগ নেতা আজিজুল হকের হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত আসামীদের গ্রেফতার না করায় ক্ষোভ প্রকাশ করে সোনাগাজী মডলে থানার ওসি নবীর হোসেনকে চাকুরী ছেড়ে চলে যাওয়ার জন্য আহবান জানান।

 

এছাড়াও তিনি এমপি রহিম উল্যাহর ফাঁসি দাবি এবং প্রতিহত করতে সোনাগাজী উপজেলায় প্রতিরোধ কমিটি গঠন করে কমিটি ঘোষণা করেন। অপর দিকে জেলা যুবলীগের আহবায়ক ও দাগনভুঁঞা উপজেলা চেয়ারম্যান দিদারুল কবির রতন বলেন, যুবলীগ নেতা আজিজের রক্তে ভেজা মাটিতে রহিম উল্যাহকে পা রাখতে দেয়া হবে না।

 

এমপি রহিম উল্যাহ ফাঁসি দাবি ও দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি করে বলেন, আমার কাছে অভিযোগ রয়েছে সোনাগাজী উপজেলায় সকল প্রকার চুরি-ডাকাতির একটি অংশ ওসি ও এমপি রহিম উল্যাহ ভাগ বাটোয়ারী করা নিয়ে থাকেন। তাই এমপির মদদ পুষ্ট ওসি নবীর হোসেনকে প্রত্যাহার সহ তাকে চাকুরীচ্যুত করার দাবি জানাচ্ছি।

 

এছাড়াও তিনি ঘোষণা দেন, আগামী ০৩ দিনের মধ্যে হাজী রহিম উল্যাহ সহ আজিজ হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত আসামী গ্রেফতার করতে না পারলে ফেনী জেলাধীন হাইওয়ে সড়ক অবরোধ সহ কঠোর আন্দোলনের ঘোষণা দেন।

 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা আ’লীগের সভাপতি আবদুর রহমান বি.কম রহিম উল্যাহ কে ফেনী জেলা আ’লীগের পক্ষ থেকে অবাঞ্চিত ঘোষণা করে বলেন, রহিম উল্যাহর দূর্ণীতি ও অনিয়মের কারণে সোনাগাজীর উন্নয়ন থমকে গেছে।

 

ওসি ও রহিম উল্যাহ ষড়যন্ত্র করে যুবলীগ নেতা আজিজকে পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করেছেন। আমরা তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি। সভা শেষে আ’লীগ কার্যালয়ের সামনে এমপি রহিম উল্যাহ কুসপুত্তলিকা দাহ করা হয়।

RELATED ARTICLES
- Advertisment -spot_img

Most Popular

Recent Comments