কালিয়াকৈরে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকদের ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক অবরোধ, যানবাহন ভাঙচুর, আহত ১৫

শ্রমিক নিহতের জের ধরে গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার আনসার একাডেমির সামনে শনিবার সকালে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে স্টারলিং কারখানার শ্রমিকরা। এসময় বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা সড়কে থাকা প্রায় ১৫/২০ টি যানবাহন ভাঙচুর করে। এতে যানবাহনে থাকা অন্তত ১৫ জন যাত্রী আহত হয়েছেন।এ ঘটনায় কারখানা একদিনের ছুটি ঘোষণা করেছে কর্তৃপক্ষ। মৌচাক পুলিশ ফাঁড়ির ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাইফুল ইসলাম বাংলানিউজকে জানান, শুক্রবার রাতে স্টারলিং কারখানার শ্রমিক আমির হোসেন বাসচাপায় নিহত হয়।

শনিবার সকালে কারখানায় কাজে যোগ দিতে করতে আসা শ্রমিকদের মধ্যে আমির হোসেনের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে শ্রমিকরা উত্তেজিত হয়ে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক অরোধ করে দেয়।

সড়ক অবরোধের ফলে সকাল ৮ টা থেকে ওই সড়কে সব ধরনের যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। ফলে মহাসড়কের দুইপাশে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়।

খবর পেয়ে কালিয়াকৈর থানা পুলিশ, মৌচাক ফাঁড়ি পুলিশ ও শিল্প পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে শ্রমিকদের বুঝিয়ে সড়ক থেকে সরানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়।

পরে শ্রমিক নিহতের বিচারের আশ্বাস দিলে শ্রমিকরা সড়ক অবরোধ তুলে নেয়। সকাল ১০টার দিকে ওই সড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক হতে থাকে।

পরে কারখানা কর্তৃপক্ষ কারখানা একদিনের জন্য ছুটি ঘোষণা করলে শ্রমিকরা ফিরে যায়।

সকাল সোয়া ১১টায় এ প্রতিবেদন লেখার সময় কারখানার সামনে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন ছিল।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।