কাদের মোল্লার ১ টি রায়ের বিরুদ্ধে আপিলে যাচ্ছে প্রসিকিউশন

জামায়াত নেতা আবদুল কাদের মোল্লার দণ্ডের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগে তাকে খালাস দেয়ার সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করে আপিলে যাবে প্রসিকিউশন। এছাড়া বাকি অভিযোগ গুলোতে আপিলের সুযোগ নেই প্রসিকিউশনের সামনে। আন্তর্জাতিক অপরাধ তদন্ত সংস্থা ও প্রসিকিউশনের সমন্বয়কারী অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল এমকে রহমান বুধবার জানালেন, ‘আইন অনুসারে ৩০ দিনের মধ্যেই এ রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হবে’।

সকালে ট্রাইব্যুনাল ভবনের সামনে এক ব্রিফিংয়ে এমকে রহমান বলেন, ‘‘কাদের মোল্লার বিরুদ্ধে ৪ নম্বর অভিযোগ কেরাণীগঞ্জের ঘাটারচর গণহত্যার সঙ্গে তার সংশ্লিষ্টতা সন্দোতীতভাবে প্রমাণিত হয়নি বলে ট্রাইব্যুনাল তাকে ওই অভিযোগ থেকে অব্যাহতি দিয়েছেন। রায়ের ওই অংশটিকে চ্যালেঞ্জ করে আপিল করবো।’’

এর আগে মঙ্গলবার সকালে বিচারক ওবায়দুল হাসানের নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের ট্রাইব্যুনাল আবদুল কাদের মোল্লার বিরুদ্ধে আনা ছয়টি অভিযোগের মধ্যে চতুর্থ অভিযোগটি ছাড়া বাকি পাঁচটি অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে বলে রায়ে বলা হয়।

রায়ে বলা হয়েছে, আবদুল কাদের মোল্লার বিরুদ্ধে ছয়টি অভিযোগের মধ্যে পাঁচটি প্রমাণিত হয়েছে। এর মধ্যে ১ থেকে ৩ পর্ডন্ত অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আবদুল কাদের মোল্লাকে ১৫ বছর কারাদণ্ড এবং ৫ ও ৬ নং অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হয়। আর ৪ নং অভিযোগ প্রমাণ করতে পারেননি প্রসিকিউশন।

প্রসঙ্গত, আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় মঙ্গলবার যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াত নেতা আবদুল কাদের মোল্লার দণ্ড বিষয়ে সুপ্রিম কোর্টে আপিলের সুযোগ আইনত নেই প্রসিকিউশনের সামনে। দি ইন্টারন্যাশনাল (ক্রাইমস) ট্রাইব্যুনালস অ্যাক্ট ১৯৭৩ এর ২১ ধারা অনুযায়ী দণ্ড পরিবর্তনের জন্য আপিলের সুযোগ নেই তাদের।

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।