জামায়াত ইসলামীর রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবিতে শাহবাগে বিক্ষোভ - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :

জামায়াত ইসলামীর রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবিতে শাহবাগে বিক্ষোভ



ঢাকা, (খবর তরঙ্গ ডটকম)

জামায়াত ইসলামীর রাজনীতি নিষিদ্ধসহ মানবতাবিরোধী অপরাধে অভিযোগে অভিযুক্ত সবার ফাঁসির দাবিতে ষষ্ঠ দিনের মতো শাহবাগ মোড় অবরোধ করে বিক্ষোভ চালু রেখেছে সরকার সমর্থক সংগঠনগুলো। রোববার অবস্থান কর্মসূচির ষষ্ঠ দিনে ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা সকাল থেকে স্কুল ও কলেজের ছাত্রছাত্রীদের বিক্ষোভস্থলে নিয়ে এসেছেন। সবারই কণ্ঠে একটাই স্লোগান রাজাকারের ফাঁসি চাই। সকালে উপস্থিতি কিছুটা কম থাকলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে মঞ্চ ঘিরে বাড়তে থাকে উৎসুক মানুষের ভিড়। এখানে কয়েকশ’ স্বেচ্ছাসেবক কাজ করছে। পি আই  গ্লোবাল নামের একটি স্বেচ্ছাসেবক সংগঠন তপ্ত রোদে ক্লান্ত মানুষের মাঝে বিনামূল্যে ডাবের পানি সরবরাহ করছে। একটি সংগঠন খুলে বসেছে চিকিৎসা ক্যাম্প। এদিকে সকাল থেকে অবস্থান কর্মসূচিতে শাহবাগের আশেপাশের রাস্তায় যানজট ব্যাপক হলে মৎস্যভবন থেকে রুপসী বাংলা মোড় পর্যন্ত রাস্তা খুলে দেয়া হয়। পরে মানুষের উপস্থিতি বাড়তে থাকায় বেলা ১২ টার দিকে রাস্তাটি আবার বন্ধ করে দেয়া হয়।

 

এ বিষয়ে ট্রাফিক পুলিশের এক কর্মকমর্তা  বলেন, তীব্র যানজট এড়াতে আশেপাশের হাসপাতালে রোগীদের সুবিধা এবং সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে সাধারণ মানুষের সুবিধার কথা ভেবে সকালে একপাশের রাস্তা খুলে দেয়া হয়। এর ফলে রাজধানীর উত্তরা, মিরপুর থেকে আসা সব গাড়ি শাহবাগ হয়ে যাচ্ছিল। কিন্তু মানুষ বাড়তে থাকায় রাস্তা বন্ধ করে দেয়া হয়।

 

এদিকে সকাল থেকে সংহতি জানাতে শাহবাগে আসেন বিশিষ্ট ব্যক্তিরা। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ- বিপিএলের দল ‘দুরন্ত রাজশাহী’র খেলোয়াররাও আসেন শাহবাগে।

 

এ সময় তারা পাকিস্তান ক্রিকেট দলকে বয়কটের ঘোষণা দেন। ক্রিকেট দলটি শাহবাগে পৌঁছামাত্র বিক্ষোভের মঞ্চ থেকে স্লোগান আর করতালির মাধ্যমে তাদের অভিবাদন জানানো হয়।

 

এ সময় দলের চেয়ারম্যান মুশফিকুর রহমান মোহন জানান, বিপিএলে কোনো পাকিস্তানি ক্রিকেটার নেই। ভবিষ্যতেও কোনো পাকিস্তানি ক্রিকেটার নেয়া হবে না। আমরা শক্তভাবে সংহতি জানাতেই এ সিদ্ধান্ত নিয়েছি। তিনি জানান, এ আন্দোলন থেকে কোনোভাবেই পিছপা হওয়া যাবে না।

 

এদিকে দুপুর পৌনে একটার দিকে সংহতি জানাতে আসেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডা. দীপু মনি। তিনি মঞ্চে না উঠে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে মাটিতে বসে পড়েন।

 

বিকেলের মধ্যে আরও বিশিষ্ট ব্যক্তিরা বিক্ষোভে সংহতি জানাতে আসবেন বলে জানা গেছে। এছাড়া জনসমাগম আরো বাড়বে বলে জানানো হয় সমাবেশ থেকে।


পূর্বের সংবাদ