দৈনিক “আমার দেশ” পত্রিকার কার্যালয় থেকে পুলিশ প্রত্যাহার

কাওরান বাজারে দৈনিক ‘আমার দেশ’ পত্রিকার কার্যালয় ঘিরে রাখা পুলিশ সদস্যদের প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে। রোববার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে তাদের প্রত্যাহার করে নেয়া হয়। তেজগাঁও জোনের ডিসি মনজুরুল কবির আরটিএনএন-কে বলেন, ‘ফাঁসির দাবিতে আন্দোলনের কারণে ফার্মগেট-শাহবাগ সড়কের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছিল। পরে সন্ধ্যার দিকে তা প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে।’
তিনি বলেন, ‘শুধু আমার দেশ পত্রিকা নয়, ওই অঞ্চলের নিরাপত্তায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছিল। এখানে ভিন্ন কোনো উদ্দেশ্য ছিল না। এখন পরিস্থিতির উন্নতি হওয়ায় পুলিশ সদস্যদের প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে।’
উল্লেখ্য, আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে বিচারপতির স্কাইপি কেলেঙ্কারির ঘটনা দৈনিক আমার দেশ প্রকাশ করে। এরপর থেকে পত্রিকাটির কার্যালয়ে ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমান অবরুদ্ধ আছেন।

এ ঘটনায় আমার দেশ কার্যালয়ে বেশ কয়েকবার পুলিশ গেলে মাহমুদুর রহমান গ্রেপ্তার হচ্ছেন বলে গুজব ছড়িয়ে পড়ে।

জামায়াত নেতা আবদুল কাদের মোল্লার যাবজ্জীবন রায় পাল্টে ফাঁসির দাবিতে আন্দোলনকারী সরকার সমর্থকরা রোববার দৈনিক আমার দেশ, নয়াদিগন্ত, সংগ্রাম, দিগন্ত টেলিভিশন ও সোনার বাংলা ব্লগ বর্জন এবং তা নিষিদ্ধের দাবি তোলে।

আর এরপরই বাড়তি নিরাপত্তায় দৈনিক আমার দেশ পত্রিকাটির কাওরান বাজার কার্যালয়ের সামনে রোববার বিকালে ১৭/১৮ জন পুলিশ অবস্থান নেয়। তারা এখানে বিকাল ৫টা থেকে অবস্থান নেয়।

এ খবরে পত্রিকাটির কার্যালয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমের কর্মীরা ভিড় করেন।

এরআগে আমার দেশ পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক সৈয়দ আবদাল আহমেদ আরটিএনএন-কে বলেছিলেন, ‘সরকারের এই বাড়তি নিরাপত্তার কথা আমাদের কাছে বিশ্বাসযোগ্য নয়।’

তিনি আরও বলেন, যেকোনো ধরনের খারাপ পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে আমার দেশ প্রস্তুত রয়েছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।