রাজধানীতে আইনজীবীর লাশ উদ্ধার

রাজধানী বাড্ডার দক্ষিণ আনন্দনগর থেকে এক আইনজীবীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ধারণা করা হচ্ছে- হাতুড়ির আঘাতে তাকে খুন হয়েছে। নিহতের নাম গিয়াস উদ্দিন (২৮)। পিতা ওমির আলী গাজী। বাড়ি খুলনার পাইকগাছা। বর্তমান ঠিকানা বাড্ডার দক্ষিণ আনন্দনগর। তিনি সু্ফিয়া বেগমের দোতলা বাসার নিচতলায় থাকতেন। বাড্ডা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আল-মামুন সংবাদ পেয়ে ওই বাসা থেকে লাশ উদ্ধার করে ঢামেক মর্গে পাঠিয়েছে ময়না তদন্তের জন্য।

মৃতের চাচাতো ভাই মোহাম্মদ তুহিন বলেন, “আমরা চাচা গিয়াসউদ্দিন জজ কোর্টের অ্যাডভোকেট। তিনি জজ কোর্ট বার কাউন্সিলের সদস্য। তার সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করে না পেয়ে আমরা আত্মীয়স্বজন মিলে পুলিশের খবর দেই। পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে।”
বাড্ডা থানার ভারপাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইকবাল হোসেন মুঠোফোনে জানান, মৃতের মাথায় তিনটি হাতুড়ির আঘাত পাওয়া গেছে। হাতুড়িটি ওই বাসা থেক জব্দ করা হয়েছে। তারপরও নিশ্চিত হওয়ার জন্য লাশ ময়না তদন্তে পাঠানো হয়েছে।

নিহতের চাচাতো ভাই তুহিন আরও জানান, তার চাচা বাসায় সাবলেট হিসেবে থাকতেন। পাশে স্ত্রীকে নিয়ে থাকতেন নিজামুদ্দিন নামে এক আরেক লোক। ঘটনার পর থেকে নিজামুদ্দিনকে আর পাওয়া যাচ্ছে না।

মৃত ব্যক্তির সম্পর্কের দাদা আলি সর্দার পাইকগাছা থেকে ফোনে জানান, গিয়াস উদ্দিন নিজামুদ্দিনকে ব্যবসার জন্য আড়াই লাখ টাকা ধার দিয়েছিলেন। টাকাটা ফিরে না পাওয়ায় গিয়াস উদ্দিন দাদাকে এ ব্যাপারে অবহিত করেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।