কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজ ছাত্রী উপমা’র ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

কুমিল্লায় শারমিন সুলতানা উপমা (২৪) নামে এক কলেজ ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৬ জুন) সকালে জেলার আদর্শ সদর উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের দৌলতপুর গ্রামের মাস্টার ভিলার একটি ঘরের সিলিং ফ্যানের সাথে ওড়না পেঁচানো অবস্থায় কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে। শারমিন ওই গ্রামের শিক্ষক মনিরুজ্জামানের মেয়ে এবং কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজের হিসাব বিজ্ঞান বিষয়ে মাস্টার্স পরীক্ষা দিয়েছিলেন।

 

পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, জেলার ব্রাহ্মণপাড়ার মাইনুল ইসলামের ছেলে শাখাওয়াতের সঙ্গে কয়েক মাস আগে শারমিন সুলতানার বিয়ে হয়। শারমিনের শ্বশুরের পরিবার ঢাকায় থাকেন এবং তার স্বামী থাকেন চট্টগ্রামে। শারমিন তার বাবার বাড়ি থেকে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজে মাস্টার্সে লেখাপড়া করতেন।

 

সোমবার গভীর রাতে নিজ ঘরের সিলিং ফ্যানের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেন। কুমিল্লা কোতয়ালী মডেল থানার ওসি মোহাম্মদ আবু ছালাম মিয়া জানান, ‘সকালে ওই ঘর থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে মেয়েটি আত্মহত্যা করেছে। তবে কী কারণে এ ঘটনা ঘটেছে তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

 

তিনি জানান, ময়নাতদন্তের জন্য লাশ কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে, প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।