প্রশ্নপত্র ছাড়াই পরীক্ষা!

লাকসাম উপজেলার ৮টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রশ্নপত্র ছাড়াই পরীক্ষা গ্রহণের খবর পাওয়া গেছে। জানা গেছে, উপজেলার কৃষ্ণপুর, দৌলতগঞ্জ, মোহাম্মদপুর, নুরপুর, ফুলগাঁও, গাজীমুড়া, ইছাপুরা কেন্দ্রীয় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রশ্নপত্র ছাড়া পরীক্ষা দিতে হচ্ছে ছাত্র-ছাত্রীদেরকে। তৃতীয়, চতুর্থ ও পঞ্চম শ্রেণীর ২য় সাময়িক পরীক্ষা প্রশ্নপত্র ছাড়া পরীক্ষা নিচ্ছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো। ২৯ আগস্ট সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, কৃষ্ণপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৩টি শ্রেণীর ৩ শতাধিক ছাত্র-ছাত্রী প্রশ্নপত্র ছাড়া শ্রেণী কক্ষের ব্লাকবোর্ডে লেখা প্রশ্ন দেখে উত্তর লিখছে। পরীক্ষার ফি নেয়ার পরও প্রশ্নপত্র না দেয়া ছাত্র-ছাত্রী ও অভিভাবকদের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে। পরীক্ষা গ্রহনকারী শ্রেণী শিক্ষকের হাতে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসের সরবরাহকৃত প্রশ্নপত্র দেখা গেছে। পরীক্ষার ফি নেয়ার পরও প্রশ্নপত্র না দেয়ার বিষয়ে এক ছাত্রের অভিভাবক কাউছার আলম সোহাগ জানান, পরীক্ষার ফি’র টাকা আত্মসাতের জন্য প্রশ্ন না দিয়েই শিক্ষকরা পরীক্ষা নিচ্ছে; এটা জঘন্যতম। পরীক্ষা গ্রহণকারী কৃষ্ণপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা বিবি আয়েশা জানান, উপজেলা শিক্ষা অফিস থেকে তিনটি শ্রেণীর জন্য ৩টি প্রশ্ন সরবরাহ করায় ছাত্র-ছাত্রীদেরকে প্রশ্ন দিতে পারিনি। ফলে  শ্রেণীকক্ষের ব্লাকবোর্ডে প্রশ্ন লিখে দিয়ে পরীক্ষা নিতে হচ্ছে। এসব বিষয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসার আবুল কালাম আজাদ জানান, পূর্বের রুটিন অনুসারে উল্লেখিত স্কুলগুলো পরীক্ষা না নেয়া এবং পূর্বের ছাপানো প্রশ্নপত্র ফাস হয়ে যাওয়ায় কারনে প্রশ্নপত্র ছাড়াই ছাত্র-ছাত্রীদের পরীক্ষা নিতে হচ্ছে।

মোঃ আবুল কালাম

লাকসাম প্রতিনিধি

০১৭১১ ৩১৪৪৩৮

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।