কওমী মাদ্রাসা আলেম-ওলামা জঙ্গী নয়, দেশ ও জাতির কল্যাণে সঙ্গী

বাংলাদেশ একটি আলেম-ওলামা পীর-মাশায়েখ অধ্যুষিত সংখ্যাগরিষ্ট বৃহত্তম মুসলিম দেশ। ঈমান, আকিদা, তাহাজিব, তামাদ্দুন, স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় সর্বকালে আলেমদের ভূমিকা সুষ্পষ্ট ও নজিরবিহীন। রাষ্ট্র ও দেশ পরিচালনায় ব্যর্থ সরকার মুসলমানের উপর নাস্তিক্যবাদী ও ফ্যাসিবাদী, ইসলাম বিদ্বেষী দোষরদের আশ্রয়-পশ্রয় দিয়ে স্বাধীনতা সার্ভভৌমত্ব বিদেশী প্রভুদের হাতে বিকিয়ে দিতে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। সেই সুযোগে তথাকথিত সুন্নি, আলেম, পীর মাশায়েখরা, মাজার, দরগাহ্ রক্ষার নামে সরলমনা মুসলমানদেরকে শিরিকে লিপ্ত করার এবং কওমী মাদ্রাসা, আলেম-ওলামা তথা প্রকৃত আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাত অনুসারিদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন নামে অপবাদ দিয়ে মুসলমানের আক্বীদা বিশ্বাসে আঘাত হানছে। মহান আল্লাহ, রাসুল (সঃ) কুরআন ও ইসলামকে নিয়ে শাহবাগসহ সারাদেশে নাস্তিক ব্লগাররা যখন সোচ্ছার গতিতে ফেসবুকে লেখালেখি প্রকাশ করে যাচ্ছিল। তখন দেশের শীর্ষ আলেম পীরে  কামেল আল্লামা শাহ্ আহমদ শফি’র আহ্বানে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের নেতৃত্বে সারা দেশে তাওহীদি জনতা গর্জে উঠলো যৌক্তিক ১৩ দফা দাবী গণদাবীতে পরিণত হলো তাতে উষ্মানিত হয়ে আল্লামা আহমদ শফিসহ হেফাজতে ইসলামের অগ্রযাত্রাকে স্তব্ধ করে দেয়ার জন্য বিভিন্নভাবে চিহ্নিত  কুচক্রীমহল ঘোলাপানিতে মাছ শিকার করার জন্য অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। তাদের হীনমিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন ঐদ্ধ্যত ও কটুক্তিপূর্ণ বিলাপের তীব্র নিন্দা ও বিভিন্ন দাবি বাতিলের জোর দাবী জানাচ্ছি।
আগামী ২৬এপ্রিল চট্টগ্রামের শানে রেসালত মহাসমাবেশ সফলের লক্ষ্যে চকরিয়ায় আয়োজিত সভায় চিরিংগা এমদাদুল উলূম মাদ্রাসা মিলনায়তনে হেফাজতে ইসলাম চকরিয়ার সিনিয়র নায়েবে আমীর মাওলানা শহিদুল্লাহ আশরাফীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অথিতির বক্তৃতায় জেলার সিনিয়র নায়েবে আমীর আল্লামা মুফতি এনামুল হক উপরোক্ত কথাগুলো বলেন। তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশের কওমী মাদ্রাসা, আলেম-ওলামা জঙ্গি প্রজনন, সন্ত্রাস সৃষ্টিকারী নয় বরং এরা ঈমান-আকিদা, স্বাধীনতা সার্ভভৌমত্ব দেশ ও জাতির কলাণ রক্ষায় সঙ্গী। তথা কথিত সুন্নি নামে সমাবেশ ডেকে আলেম-ওলামা, হেফাজতে ইসলামের বিরুদ্ধে বিভ্রান্ত ও ষড়যন্ত্র ছড়াচ্ছে। নবী (সঃ), সাহাবা (রাঃ) আউলিয়া কেরামের শানে আদর্শ বহির্ভূত বাতেল আকিদা বিশ্বাস নিয়ে দেশে জাতি ও সমাজের কাছে কলঙ্ক, তারাই জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাসবাদ জন্ম দিয়ে দেশে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করেছে। আমরা দৃঢ়তার সাথে বলতে চায়, তাদের ভ্রান্ত মতবাদ মিথ্যা, ভিত্তিহীন, বিভ্রান্তি ও ষড়যন্ত্র অদৃশ্য কারো দালালি ছাড়া আর কিছুই নয়। সভার এক বক্তব্যে হেফাজতে ইসলাম চকরিয়া নেতৃবৃন্দ তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানায়। অনতিবিলম্বে ১৩ দফা গণদাবী মেনে নেযার জন্য সরকারের প্রতি জোরদাবিও জানায় চকরিয়া হেফাজত নেতৃবৃন্দ। সভায় বক্তব্য রাখেন, নায়েবে আমীর মাওলানা আব্দুল মন্নান, মাওলানা হোছাইন আহমদ, যুগ্ম সম্পাদক মাওলানা ইব্রাহীম আজিজি, মাওলানা ফরিদুল হক, সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা ছরওয়ার আলম কুতুবী, অর্থ সম্পাদক মাওলনা ইদ্রিস, প্রচার সম্পাদক জামাল উদ্দিন তাওহীদ, আজিজুল হক, মুর্শেদুল হক, আব্দুল্লাহ্, ফয়েজ উল্লাহ্, নুর হামিদ প্রমুখ। সভায় ২৬ এপ্রিল চট্টগ্রামের শানে রেসালত মহা-সমাবেশ সফল করার সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। এতে সকল ঈমানদার দলমত নির্বিশেষ তাওহীদি জনতা জিকিরের সহিত দলে দলে যোগদান করার আহ্বান জানানো  হয়।


সম্পাদনা: শামীম ইবনে মাজহার,নিউজরুম এডিটর

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।