কুমিল্লার দাউদকান্দিতে শিবির-পুলিশ ব্যাপক সংঘর্ষ: গুলিবিদ্ধসহ আহত ২০, আটক ১

১৮ দলীয় জোটের ডাকা ৭২ ঘন্টা অবরোধের দ্বিতীয় দিনে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার দাউদকান্দিতে পুলিশ ও শিবিরের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া এবং ব্যাপক সংঘর্ষ হয়েছে। রোববার সকাল সাড়ে ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত মহাসড়কের শহীদ নগরের সোনালী আঁশ জুট মিল এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।
সংঘর্ষে  ইমাম হোসেন (২২) নামে এক শিবির কর্মী গুলিবিদ্ধসহ ২০ জন আহত হয়েছে। তাদেরকে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ সময় পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ৯টি মোটর সাইকেল আটক করেছে।
এ বিষয়ে কুমিল্লা (উত্তর) জেলা ছাত্রশিবির সভাপতি বলেন, আমরা শান্তি পূর্ণভাবে অবরোধ পালন করছিলাম। পুলিশ বিনা উস্কানিতে আমাদের কর্মীদের উপর হামলা, লাঠিচার্জ ও গুলি বর্ষণ করে এবং জামায়াত-শিবির নেতাকর্মীদের বাড়ি-ঘর ভাঙচুর করে।
এ ঘটনায় একজন গুলিবিদ্ধসহ ২০ কর্মী আহত হয়েছে বলে তিনি দাবি করেন।
দাউদকান্দি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল ফয়সল বলেন, “সকালে মহাসড়কের শহীদ নগর এলাকায় অবরোধকারীরা সড়ক অবরোধের চেষ্টা করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে পুলিশকে ল্য করে তারা ইট-পাটকেল ও ককটেল নিপে করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ বেশ কয়েক রাউন্ড সর্টগানে গুলি ও টিয়ার সেল নিপে করে।”
তিনি আরো বলেন, এ সময় অবরোধকারীদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। এ সময় ৯টি মোটর সাইকেল আটক করা হয়।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।