কক্সবাজার উত্তপ্ত: পুলিশ, র‌্যাব ও জামায়াত-শিবির মুখোমুখি অবস্থানে, এক পুলিশ কর্মকর্তা আহত

জামায়াত নেতা কাদের মোল্লার ফাঁসির কার্যকরের ঘোষণাকে কেন্দ্র করে কক্সবাজার শহরে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। সকাল থেকে শহরের বার্মিজ মার্কেট এলাকা থেকে লালদীঘির পূর্ব পাড় পর্যন্ত জামায়াত-শিবির ও পুলিশ মুখোমুখি অবস্থানে রয়েছে। এ নিয়ে যে কোন মূহুর্তে রক্তয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা করা হচ্ছে। এ দিকে সকালে অবরোধ চলাকালে শিবির কর্মীদের বাঁধা দিতে এসে পুলিশের সাথে বিুব্ধ জনতার ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে।

এ সময় কক্সবাজার সদর মডেল থানার পুলিশ উপ-পরিদর্শক নুরুজ্জামান গুরুতর আহত হন। তাকে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সুত্র মতে, বুধবার ভোর থেকে শিবির কর্মীরা মাঠে শক্ত অবস্থান নেয়। শহরের অন্তত ১০টি পয়েন্টে জামায়াত-শিবিরের বিুব্ধ লোকজনকে দেখা গেছে। এ সময় তারা সড়কে প্রচুর পরিমাণ টায়ার জালিয়েছে। কয়েক জায়গায় ককটেল বিষ্ফোরণের খবরও পাওয়া গেছে।

তবে এতে কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। বুধবার বিকালের দিকে বাজারঘাটা এলাকায় পুলিশকে অবরুদ্ধ করে রাখে বিুব্ধ জামায়াত-শিবির কর্মীরা। খবর পেয়ে বেলা একটার দিকে র‌্যাব-৭ এর একটি দল এসে তাদের মুক্ত করে। পরে পরিস্থিতি অনেকটা প্রশাসনের নিয়ন্ত্রণে আসে। রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মাঠে জামায়াত-শিবির, পুলিশ ও র‌্যাবের অবস্থান রয়েছে। সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মু. জসিম উদ্দিন জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী মাঠে শক্ত অবস্থানে রয়েছে। কোন ধরণের নাশকতা ও অস্থিতিশীলতা ছাড় দেয়া হবেনা বলে জানিয়েছেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।