একরাতে মাগুরায় ছয় মন্দিরে হামলা, ১৫ প্রতিমা ভাঙচুর

মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার দীঘা ও বিনোদপুর ইউনিয়নের   পচুড়িয়া, হাটবাড়িয়া, কানুটিয়া ও বিনোপুর গ্রামের হিন্দু অধ্যুষিত এলাকায় ছয়টি মন্দিরে হামলা চালিয়ে ১৫টি প্রতিমা ভাঙচুর করেছে দুর্বৃত্তরা। সোমবার মধ্য রাত থেকে ভোর সাড়ে ৪টা পর্যন্ত এ ঘটনা ঘটে বলে জানা গেছে। সাতক্ষীরার দেবহাটায় সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের কয়েকটি বাড়ি ঘরে আগুন দিয়ে পালানোর সময় হাতানাতে আটক যুবলীগ নেতা আবদুল গাফফারকে এক বছরের কারাদণ্ড দেয়ার পরিদন রাতেই এ সব হামলার ঘটনা ঘটেছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, উপজেলার পাচুড়িয়া সার্বজনীন কালী মন্দিরে দুইটি গৌরী ও শিব প্রতিমা, সুশান্ত মাস্টারের বাড়ির মন্দিরের বৈদ্যনাথ প্রতিমা, একই গ্রামের পশ্চিম পাড়ার নগেন্দ্রনাথ বিশ্বিাসের বাড়ির মন্দিরের কার্তিক প্রতিমা ভাঙচুর করা হয়েছে।

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা সাবেক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট নিতাই রায় চৌধুরীর গ্রামের বাড়ি হাটবাড়িয়ার সার্বজনীন কালী মন্দিরের দুটি প্রতিমা, বিনোদপুর বাজার ও কানুটিয়া এলাকার মন্দিরে  মন্দিরে হামলা চালিয়ে দুর্বৃত্তরা মোট ১৫টির বেশি প্রতিমা ভাঙচুর করে।

এসব মন্দিরের প্রতিমা ছুড়ে রাস্তা ও আশপাশে ফেলে দেয়া হয়েছে। এ ঘটনায় পুরো হিন্দু পল্লীতে চরম আতঙ্ক বিরাজ করছে। পুলিশ কাউকে আটক করতে পারেনি। এলাকার নিরাপত্তায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

মহম্মদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।