রায়পুরে বিএনপি-জামায়াতের ৪’শ২৮ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে সোমবার রাতেসহ গত ৩ দিনে অবরোধকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন সড়কের পাশের গাছ কেটে হত্যা ও সড়ক কেটে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করায় পৃথক ৪টি মামলা হয়েছে। বন কর্মকর্তা ও পুলিশ বাদি হয়ে বিএনপি-জামায়াতের নেতাকর্মীর নাম উল্লেখ ও অজ্ঞাতসহ  ৪শ’২৮ জনের বিরুদ্ধে এসব মামলা করেন। গ্রেফতার এড়াতে নেতাকর্মীরা আতœগোপন করেছেন।
পুলিশ জানায়, গত ৪ দিনে রায়পুরÑ লক্ষ্মীপুর আঞ্চলিক মহাসড়কে সড়ক কেটে এবং সড়কের পাশের গাছ কেটে হত্যার অভিযোগে রায়পুর থানার উপ-পরিদর্শক ( এসআই) আবুল কালাম আজাদ বাদি হয়ে গত ১৪ ডিসেম্বর জামায়াত নেতা মোঃ দুলাল, মোঃ হারুনসহ ২০ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ৫০-৬০ জনের নামে মামলা দায়ের করেন।
গত ১৬ ডিসেম্বর চরমোহনা ইউনিয়ন সড়কের পাটওয়ারী রাস্তার মাথা থেকে স্টিল ব্রিজ পর্যন্ত নির্বিচারে গাছ কেটে হত্যার অভিযোগে বন বিভাগের হায়দরগঞ্জ শাখার রেঞ্জ কর্মকর্তা বেলায়েত হোসেন বাদি হয়ে  জামায়াত নেতা কাজি আব্দুস ছাত্তার ও বিএনপি নেতা হেজু বাহাদুরসহ ৪জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেন।
গত ১৮ ডিসেম্বর পাটওয়ারী রাস্তার মাথা, মিতালী বাজার, ঝাউডুগি গ্রাম ও হায়দরগঞ্জের স্টিল ব্রিজ সড়কের পাশের ৫টি বনায়ন প্রকল্পের  গাছ কেটে হত্যা করার অভিযোগে উপজেলার সহকারী রেঞ্জ (বন) আব্দুল মান্নান পাটোয়ারী  বাদি হয়ে অঞ্জাত ১৮০-২০০ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন।
গত ২৩ ডিসেম্বর রায়পুর পানপাড়া সড়ক, হায়দরগঞ্জ সড়কের কাজিরচর এলাকায় সড়ক কেটে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়া ও রাস্তার পাশের গাছ হত্যা করায় রায়পুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবুল বাশার বাদি হয়ে ওই এলাকার জামায়াত নেতা নাসির উদ্দিন, বিএনপি নেতা ইব্রাহিম ও মোঃ খলিলসহ ১৯ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ১০০-১২৫ জনের নামে এ মামলা দায়ের করা হয়েছে।
যোগাযোগ করা হলে উপজেলা জামায়াতের সেক্রেটারী মোঃ শাহজাহান পাটোয়ারী  বলেন, সড়ক কেটে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন  ও গাছ কেটে হত্যা করার ঘটনা গুলো তার দলের নেতা কর্মীরা করেননি দাবি করে বিএনপির নেতাকর্মীদের দোষারোপ করেন।
অপরদিকে  পৌর বিএনপির আহবায়ক এবিএম জিলানী  এবিএম জিলানী বলেন, কাদের মোল্লার ফাঁসি কার্যকরের পর থেকেই জামায়াত শিবিরের নেতাকর্মীরা সড়ক কাটা, গাছ হত্যা করাসহ নানা অপকর্ম চালায়। তার দলের নেতাকর্মীরা এসব অপকর্ম করেনি দাবি করে তিনি মিথ্যা মামলায় পুলিশ নেতাকর্মীদের বাড়িতে প্রতিরাতে হয়রানী করছে বলে অভিযোগ করেন।
রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রুপক কুমার সাহা বলেন, অবরোধকে পুজি করে বিএনপি- জামায়াতের নেতাকর্মীরা সড়ক কেটে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন  এবং নির্বিচারে গাছ কেটে হত্যা করায় বন বিভাগ ও পুলিশ বাদি হয়ে পৃথক ৪টি মামলা করেছে। আসামীদের গ্রেফতার করতে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।