পিতার সম্পত্তি আত্মসাতের অভিযোগ ঝালকাঠিতে ভাইয়ের হাতে বোন প্রহৃত ।। আদালতের সমন জারি

ঝালকাঠির ডাক্তার পট্টি এলাকায় পিতার রেখে যাওয়া সম্পত্তি আত্মসাৎ করার অভিযোগে ভাইয়ের বিরুদ্ধে আইনের আশ্রয় নেয়ায় বোন ফারজানা আক্তার ডায়নাকে পিটিয়ে জখম করেছে ভাই সাদবিন আলম সেজান। ফারজানাকে আহতাবস্থায় ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গত ৩০ মে এ ঘটনায় ১ জুন বাদি হয়ে ডায়না তার ভাই সেজানসহ ৫/৬ জনকে অজ্ঞাত আসামী করে আদালতে মামলা দায়ের করেছে। আসামী সেজানকে আদালতে উপস্থিত হতে সমন জারি করা হয়েছে।

 

মামলায় ডায়না উল্লেখ করেন, তার ভাই সেজান পিতা সরদার সামসুল আলমের মৃত্যুর পর অর্থ সম্পত্তি একক ভাবে আত্মসাৎ ও খরচ করতে থাকে। এতে ডায়না, তার বোন ও দুলাভাই প্রতিবাদ জানালে ইতিপূর্বে সবাইকে সেজান মারধর করে। ঐ ঘটনায় ফারজানা বাদি হয়ে পারিবারিক সহিংসতা আইনে প্রতিকার চেয়ে বিজ্ঞ আদালতে মামলা দায়ের করে।

 

গত ২৮ মে এ মামলায় আসামীরা আদালতে হাজির হলে আগামী ১৫ জুন ট্রাইলের জন্য তারিখ ধার্য্য করা হয়। তাই ক্ষিপ্ত ও উত্তেজিত হয়ে ৩০ মে সেজান ফারজানাকে মামলা তুলে নিতে কাগজে স্বাক্ষর দিতে বলে। ফারজানা এতে রাজী না হওয়ায় লাঠি দিয়ে তাকে মেরে সিজান রক্তাক্ত জখম করে খুন করার হুমকী দিয়েছে বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়। এব্যাপারে সিজান তার বক্তব্যে বলেন, পূর্বের মামলাকে সত্য প্রমাণিত করায় সে আমার বিরুদ্ধে এ মামলা করেছে। তাকে মারধর করার কোন ঘটনাই ঘটেনি।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।