নাই্যংছড়ি সীমান্তে মিয়ানমারের ফের গুলি বর্ষণ ॥ বাংলাদেশী কাঠুরিয়া আহত

কক্সবাজার জেলার পার্শ্ববর্তী বান্দরবানের নাই্যংছড়ি উপজেলার সদর ইউনিয়নের আশারতলীর ৪৭ নাম্বার সীমান্ত পিলার এলাকায় মায়ানমার সীমান্তরী বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি)’র গুলিতে এক বাংলাদেশী কাঠুরিয়া গুরুতর আহত হয়েছে । গত ১২ জুন বৃহস্পতিবার দুপুর দেড়টায় নাই্যংছড়ি উপজেলার সদর ইউনিয়নের মায়ানমার সীমান্তবর্তী আশারতলী ৪৭ নাম্বার সীমান্ত পিলার এলাকায় আশারতলীর মির আহমদের পুত্র দিল মোহাম্মদ কাঠ সংগ্রহ করতে গেলে মায়ানমার বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন (বিজিপি)’র ছেনছড়ি সেক্টরের আমতলী ক্যাম্প থেকে ৩-৪ রাউন্ড গুলি বর্ষণ করে। বিজিপি সদস্যের ওই গুলি দিল মোহাম্মদ কোমরের নিচে লাগে। ওই গুলির আঘাতে দিল মোহাম্মদের পুরুষ অঙ্গের অণ্ড কোষ ছিড়ে যায় ।
স্থানীয়রা আশংকাজনক অবস্থায় দিল মোহাম্মদকে বেলা ৩টার দিকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। কক্সবাজার সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. আব্দু সালাম বলেন দিল মোহাম্মদের অবস্থা আশংকা জনক। তাকে বর্তমানে সার্জারী বিভাগে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ ঘটনার পর ওই এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে ।
এ ব্যাপারে নাই্যংছড়ি ৩১ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে.কর্ণেল সফিকুর রহমান বলেন, আশারতলীর ৪৭ নং সীমান্ত পিলার এলাকায় মিয়ানমার বিজিপি গত ১২জুন বৃহস্পতিবার গুলি বর্ষণ করে। ওই গুলি বর্ষণে বাংলাদেশের এক নাগরিক গুলি বিদ্ধ হয়। এক সপ্তাহে আগে মায়ানমার বিজিপি গুলি বর্ষণের পর ফের গত ১২ জুন গুলি বর্ষণ করেছে মায়ানমার বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন (বিজিপি)।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।