নাঙ্গলকোটে চাঁদার টাকা দিতে অস্বীকার করায় হামলা, বাড়ীঘর ভাংচুর, আহত -৩ - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :

নাঙ্গলকোটে চাঁদার টাকা দিতে অস্বীকার করায় হামলা, বাড়ীঘর ভাংচুর, আহত -৩



নিজস্ব প্রতিবেদক, (খবর তরঙ্গ ডটকম)

কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের পেরিয়া ইউনিয়নের চাঁন পদুয়া গ্রামে জমি নিয়ে চাচার সাথে ভাতিজাদের বিরোধ চলে আসছে। বিষয়টি সমাধানে দু’ পক্ষের নিকট সাবেক মেম্বার খোকন মিয়া ও তার বাহিনী চাঁদা দাবী করে বলে অভিযোগ উঠেছে। পরে একই গ্রামের চাচা সাইদুল হক তার ভাই মৃত মাস্টার সামছুল হকের ছেলেদের সাথে পারিবারিক ভাবে বিষয়টি সমাধান করে। বিরোধকৃত জমি রেজিষ্ট্রি দিতে বুধবার সকালে উভয় পক্ষ নাঙ্গলকোট যাওয়ার পথে চাঁন পদুয়া মোড় নামক স্থানে পৌঁছলে চাঁদার টাকা দিতে পথরোধ করে সাবেক ইউপি মেম্বার ও তার বাহিনী।


এসময় সাইদুল হক ও তার ভাতিজারা চাঁদা দিতে অস্বীকৃতি জানালে তাদের উপর হামলার ঘটনা ঘটে। এছাড়া, একইদিন রাতে মেম্বার বাহিনী পুনরায় সংঘবদ্ধ হয়ে তাদের বাড়ীতে হামলা, ভাংচুরের তান্ডব চালায়। হামলায় সায়েদুল হক (৫৫), তার ভাতিজা মিনহাজুল ইসলাম নোমান (৩০) ও বৃদ্ধা ফিরোজা বেগম (৬০) আহত হন। আহতদের স্থানীয় ক্লিনিকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। পরে খবর পেয়ে নাঙ্গলকোট থানা পুলিশের উপ পরিদর্শক আখতার হোসেনের সঙ্গীয় ফোর্স ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।


ভূক্তভোগী সায়েদুল হক জানান, আমরা চাঁদা দিতে অস্বীকৃতি জানানো এবং নিজেরা সমাধান করে ফেলায় খোকন মেম্বার ক্ষিপ্ত হয়ে জমিন রেজিষ্ট্রি করতে যাওয়ার সময় হামলা করে। পরে অাবার রাতে আমাদের বাড়ীতে হামলা ও ভাংচুর চালায়।


এ ব্যাপারে অপর ভূক্তভোগী নাজমুল হোসেন মামুন বলেন, খোকন মেম্বার ও তার লোকজন শুধু আমাদের উপর চাঁদা দাবী ও হামলা করেছে এমন নয় তারা এলাকায় শালিস বানিজ্য, অন্যের ভূমি দখল করে বালু বিক্রি, ফোরকানিয়া মাদ্রাসার জমি দখল, মাদক কারবার ও মানুষের উপর হামলা করে বেড়ায়। আমারা এ ব্যাপারে স্থানীয় প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।


ঘটনায় অভিযুক্ত সাবেক ইউপি সদস্য খোকন মিয়া বলেন, আমার বিরুদ্ধে সাইদুল হক ও তার ভাতিজারা সব মিথ্যা কথা বলেছে। মূলত আমরা বিষয়টি নিরসন করেছি কিন্তু তারা সমাধান না মেনে আরেকটি কবলা সৃষ্টির চেষ্টা করছে। আমি কবলা সৃষ্টির  বিষয়ে তাদের কাছে জানতে চাওয়ায় তারা আমি ও আমার চাচাতো ভাইকে পিটিয়ে আহত করে।


নাঙ্গলকোট থানা পুলিশের উপ পরিদর্শক আখতার হোসেন বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। লিখিত অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
কেফায়েত উল্লাহ মিয়াজী,


উপজেলা এর অন্যান্য খবরসমূহ
কুমিল্লা এর অন্যান্য খবরসমূহ
জেলা এর অন্যান্য খবরসমূহ
নাঙ্গলকোট এর অন্যান্য খবরসমূহ
পূর্বের সংবাদ