জয়েশ-ই-মোহাম্মদ নেতা মোহাম্মদ আফজাল গুরুর ফাঁসির রায় কার্যকর

২০০১ সালের ১৩ ডিসেম্বর ভারতের পার্লামেন্টে হামলার ঘটনায় জয়েশ-ই-মোহাম্মদ নেতা মোহাম্মদ আফজাল গুরুর ফাঁসির রায় কার্যকর করা হয়ছে।আজ শনিবার স্থানীয় সময় সকাল ৮টায় (০২০০ জিএমটি) দেশটির তিহার জেলে এ রায় কার্যকর করা হয়। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুশিল কুমার শিন্ডে এবং সরাষ্ট্রসচিব আরকে সিং এই ফাঁসি কার্যকরের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদসংস্থা পিটিআই এর বরাত দিয়ে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো এ তথ্য জানায়।

এর আগে রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষার আবেদন করেন আফজাল গুরু। রাষ্ট্রপতির ভবনের মুখপাত্র ভেনু রাজামনি জানান, রাষ্ট্রপতি সেই আবেদন নাকচ করে দিয়ে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ডের রায় বহাল রাখেন।

আফজাল গুরুর ফাঁসি কার্যকর করার সময় তিহার জেল প্রাঙ্গন এবং কাশ্মিরের কিছু অংশে কারফিউ জারি করা হয়।

২০০১ সালের ১৩ ডিসেম্বর ভারতের পার্লামেন্ট ভবনে হামলার অভিযোগে আফজাল গুরুর বিরুদ্ধে ২০০৪ সালে ফাঁসির রায় ঘোষণা করা হয়। ২০০১ সালের ওই দিনে ভারী অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে আফজালের নেতৃত্বে পাঁচজনের একটি দল ভারতের পার্লামেন্ট ভবনে হামলা চালায়। এতে সাংবাদিক এবং নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যসহ ৯ জন নিহত হয়। সূত্র: বিভিন্ন অনলাইন পোর্টাল

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।