সুন্দরবনের পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ৬ - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :

সুন্দরবনের পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ৬



নিউজ ডেস্ক, (খবর তরঙ্গ ডটকম)

সুন্দরবনের খুলনার কয়রা উপজেলার মান্দারবাড়িয়া অংশে পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে অন্তত ছয়জন নিহত হয়েছেন।

 

পুলিশের দাবি, নিহতরা সবাই বাঘ শিকারী। এ সময় তাদের কাছ থেকে তিনটি বাঘের চামড়া উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতরা হলেন- কয়রা উপজেলা এলাকার বাসিন্দা সিদ্দিক সানা, শফিকুল ইসলাম গাজী, আনসার আলী সানা, মামুন গাজী, মজিদ গাজী ও বাপ্পী।

 

কয়রা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হরেন্দ্র নাথ সরকার বলেন, শনিবার রাতে গোপন খবরের ভিত্তিতে তারা কয়রার বেতকাশিয়া নামে একটি গ্রাম থেকে সন্দেহজনক এক চোরা শিকারীকে আটক করে।

 

তার কাছ থেকে পাওয়া স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে, ভোরের দিকে ১৫ জন পুলিশের একটি দল চোরা শিকারীদের খোঁজে জঙ্গলে রওনা হন। পরে জঙ্গলের ৩৮ কিলোমিটার গভীরে মান্দারবাড়িয়া নামে একটি খালের পাশে সন্দেহভাজন চোরা শিকারীদের সঙ্গে পুলিশের ‘বন্দুকযুদ্ধ’ হয়।

 

পুলিশের গুলিতে যে ছয়জন মারা গেছেন, তারা স্থানীয় ‘ইলিয়াস জাহাঙ্গীর’ বাহিনীর সদস্য বলে দাবি করেন ওসি। তিনি বলেন, ওই আস্তানা থেকেই তিনটি চামড়া উদ্ধার হয়। অবশ্য এর আগে ভোরে তিনটি বাঘের চামড়াসহ তাদের কয়রার চরামুখ এলাকা থেকে গ্রেপ্তারের কথা জানিয়েছিল পুলিশ। তখন এক নারীকেও গ্রেপ্তার করা হয়, তাকে রেখে অন্যদের নিয়ে পুলিশ বনে অভিযানে যায়।

 

পুলিশ সুপার হাবিবুর রহমান বলেছিলেন, ‘গ্রেপ্তারকৃতদের নিয়ে সুন্দরবনে তাদের আস্তানায় আরো বাঘের চামড়া উদ্ধারের জন্য পুলিশ অভিযান চালায়।’

 

সম্প্রতি এক বাঘ শুমারি কর্মসূচি শেষ করার পর বাংলাদেশের বন বিভাগ জানিয়েছে, সুন্দরবনের বাংলাদেশ অংশে এখন মোটে ১০৬টি বাঘ অবশিষ্ট রয়েছে।


এ সম্পর্কিত আরো খবর