নাঙ্গলকোটে প্রথম করোনা আক্রান্ত বৌ-শ্বাশুড়ি

করোনাভাইরাস সংক্রমণে প্রথমবারের মতো কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে বৌ-শ্বাশুড়ি করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। উপজেলার রায়কোট দক্ষিণ ইউপির পূর্ব বামপাড়া গ্রামে এ আক্রান্তের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সোমবার দুপুরে উপজেলা প্রশাসন ওই বাড়িটি লকডাউন করেছে। 


পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত শনিবার পূর্ব বামপাড়া গ্রামের মৃত আমিন উল্যাহর ছেলে কৃষক আব্দুল করিম ওরফে বাগন (৫৪) করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যুবরণ করেন।


পরে নমুনা সংগ্রহ করে থানা পুলিশ গিয়ে পারিবারিক কবরস্থানে নিহতের লাশ দাফন করেন। ওই বাড়িতে সর্বমোট আট জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। এদের মধ্যে সোমবার দুপুরে কুমিল্লা জেলা সিভিল সার্জন অফিস কার্যালয়ের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে দুজনের রিপোর্ট পজিটিভ আসে।


তারা হলেন, মৃত. আব্দুল করিম ওরফে বাগনের স্ত্রী রাশিদা বেগম (৫২) ও ছেলে বৌ সুমি আক্তার (২৬)। 


নাঙ্গলকোট উপজেলা স্বাস্থ্য বিষয় কর্মকর্তা ডাক্তার দেব দাস দেব এ করোনা শনাক্তের  বিষয়ে বক্তব্য দিতে রাজি হননি।িএর আগে তিনি ঘোষণা দিয়েছিলেন, আমি ডাক্তার থাকা অবস্থায় নাঙ্গলকোট উপজেলায় কোনো করোনা আসতে পারবে না। এ পর্যন্ত তিনি নাঙ্গলকোটে ১ শত ৮ জনের নমুনা সংগ্রহ করেছেন বলে জানা যায়। 


এ বিষয়ে নাঙ্গলকোট থানার অফিসার ইনচার্জ বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী বলেন, খবর পেয়ে উপজেলা প্রশাসনের মাধ্যমে ওই বাড়িটি লকডাউন করা হয়েছে। পাশাপাশি তাৎক্ষণিক পুলিশ পাঠিয়ে তাদেরকে নজরদারিতে রাখা হয়েছে। যাতে তারা পালাতে না পারে।