জাতীয় রাজস্ব বোর্ডে বড় ধরনের রদবদল

বড় ধরনের রদবদল হয়েছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডে (এনবিআর) কমিশনার পর্যায়ের কর্মকর্তাদের মধ্যে । এর মধ্যে শুল্ক ও ভ্যাট বিভাগের ছয়জন কমিশনারের দপ্তর বদল ছাড়াও একজন অতিরিক্ত কমিশনারকে কমিশনার হিসেবে চলতি দায়িত্বে পদোন্নতি দেওয়া হয়েছে।

এনবিআর সূত্র জানিয়েছে, শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খানকে শুল্ক মূল্যায়ন ও অভ্যন্তরীণ নিরীক্ষা কমিশনারেটে বদলী করা হয়েছে। আর শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের দায়িত্বে আনা হয়েছে ঢাকা পশ্চিম ভ্যাট কমিশনার ড. মোঃ শহিদুল ইসলামকে। এছাড়া ঢাকা উত্তরের ভ্যাট কমিশনার মাসুদ সাদিককে খুলনায়, ভ্যাট আপিলাড ট্রাইব্যুনালের সদস্য বেগম জাকিয়া সুলতানাকে ঢাকা উত্তরে, শুল্ক মূল্যায়ন ও অভ্যন্তরীণ নিরীক্ষা কমিশনারেটের কমিশনার এস এম হুমায়ুন কবিরকে ঢাকা পশ্চিমে, কে এম অহিদুল আলমকে ভ্যাট আপিলাড ট্রাইব্যুনালে আনা হলেও পরবর্তী পদায়নের জন্য অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগে ন্যস্ত করা হয়েছে। এছাড়া অন্য এক আদেশে চট্টগ্রাম ভ্যাটের অতিরিক্ত কমিশনার সুরেশ চন্দ্র বিশ্বাসকে চলতি দায়িত্বে মংলার কমিশনার হিসেবে পদোন্নতি দেওয়া হয়েছে।

এর আগে এনবিআরের কয়েকজন সদস্যের দপ্তরে রদবদল আনা হয়। এছাড়াও সম্প্রতি আয়কর, ভ্যাট ও শুল্ক বিভাগে বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে রদবদল ও পদোন্নতিও দেওয়া হয়।

এনবিআর সূত্র জানিয়েছে, প্রতিষ্ঠানটিতে নতুন চেয়ারম্যান হিসেবে মোঃ মোশাররফ হোসেন ভুঁইয়া দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই অপেক্ষাকৃত যোগ্য কর্মকর্তারা গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে আসছেন। আর যাদের বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহার কিংবা প্রভাব-প্রতিপত্তি খাটানোর অভিযোগ রয়েছে, তাদেরকে কম গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে বদলী করা হচ্ছে। গতকাল বদলীর আদেশ হওয়া কোন কোন কর্মকর্তার বিরুদ্ধেও ক্ষমতার অপব্যবহারের বেশকিছু অভিযোগ রয়েছে। এ ধরনের অনেক কর্মকর্তার মধ্যেই এখন বদলী আতঙ্ক বিরাজ করছে বলে জানা গেছে।