এই সরকার দেশকে তলাবিহিন ঝুড়িতে পরিণত করেছে: আযম খান - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :
রাজশাহী বিভাগীয় জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সদস্য সংগ্রহ কার্যক্রম পর্যালেচনা সভা

এই সরকার দেশকে তলাবিহিন ঝুড়িতে পরিণত করেছে: আযম খান



প্রেস বিজ্ঞপ্তি, (খবর তরঙ্গ ডটকম)

জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম রাজশাহী বিভাগের সদস্য সংগ্রহ কার্যক্রম পর্যালোচনা সভা গতকাল শনিবার বেলা ৩টায় অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপি’র ভাইস চেয়ারম্যান ও জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের যুগ্ম আহবায়ক এ্যাডভোকেট আহমেদ আযম খান বলেন, এই সরকার দেশকে তলাবিহিন ঝুড়িতে পরিণত করেছে। দেশে পেঁয়াজের দাম ত্রিপল সেঞ্চুরীর কাছাকাছি পৌঁছেছে। এছাড়াও চাল, ডালসহ নিত্যা প্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্য আকাশচুম্বী হওয়ায় সাধারণ জনগণ মারাত্মক বিপদে পড়ে গেলেও সরকারের পক্ষ থেকে নেই কোন পদক্ষেপ। কারন এর পিছনে সরকারের প্রভাবশালীরা রয়েছে। তারা হাজার হাজার কোটি টাকা লোপাট করে বিদেশে পাচার করছে। এরমধ্যে সরকারের এমপি মন্ত্রীরাও রয়েছেন বলে উল্লেখ করেন তিনি।
আযম খান আরো বলেন, দেশে এখন কোন প্রকার গণতন্ত্র নাই। এই সরকার গণতন্ত্রকে হত্যা করে দেশে একনায়কতন্ত্র কায়েম করেছে। এর মধ্যে দিয়ে সরকার এই কয়েকদিনে শুধু পেঁয়াজ থেকে হাজার হাজার কোটি টাকা লোপাট করেছে। জনগণ কথা বললেই নেমে আসছে তাদের উপর নির্যাতন। তিনি বলেন, তিনবারের প্রধানমন্ত্রী গণতন্ত্রের মানষকন্যা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে বিনা অপরাধে শুধুমাত্র রাজনৈতিক কারনে জেলে রেখেছে। তিনি কোন প্রকার দূর্নীতি না করেও জেল খাটছেন। জেলের মধ্যে ধীরে ধীর মৃত্যুর দিকে এগিয়ে গেলেও সরকার তাঁকে জমিন দিচ্ছেনা। বেগম জিয়ার মুক্তি ও গণগন্ত্র পূনরুদ্ধারে বেগম জিয়ার কোন বিকল্প নাই। গণতন্ত্র উদ্ধার এবং দেশবাসীকে এই স্বৈরাচার সরকারের কবল থেকে রক্ষা করতে হলে বেগম জিয়াকে আন্দোলনের মাধ্যমে মুক্ত করতে হবে। আর আন্দোলন গড়ে তুলতে হলে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামকে অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। এরজন্য আইনজীবীদের একাত্বতা হতে হবে।
তিনি বলেন, একাত্বতা হতে হলে নেতৃত্ব তৈরী করতে হবে। আর এই নেতৃত্ব তৈরী করতে হলে কাউন্সিল অপরিহার্য। এরজন্যই দেশ ব্যাপি ৭২াট বারে জাতীয়তাবাদী আইনজীবীদের সদস্য করা হচ্ছে। চলতি মাসের ৩০ তারিখের মধ্যে সব বারে সদস্য সংগ্রহ সমাপ্ত ও কাউন্সিল সমাপ্ত করার পরামর্শ দেন প্রধান অতিথি। সেইসাথে কোন প্রকারেই যেন অনুপ্রবেশকারীরা যেন স্থান না পায় তার জন্য সজাগ থাকতে পরামর্শ দেন তিনি। শেষে রাজশাহী বিভাগাগের সকল জেলা আগত আইনজীবীদের ধন্যবাদ জানান তিনি।


নগরীর একটি হোটেলে অনুষ্ঠিত সভায় সভাপতিত্ব করেন জাতীয়তা আইনজীবী ফোরাম রাজশাহী ইউনিটের আহবায়ক এ্যাডাভোকেট আলহাজ্ব আবুল কাশেম। প্রধান অতিথি ছিলেন বিএনপি’র ভাইস চেয়ারম্যান ও জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের যুগ্ম আহবায়ক এ্যাডভোকেট আহমেদ আযম খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপি কেন্দ্রীয় কমিটির ত্রাণ ও পুনর্বাসন বিষয়ক সহ-সম্পাদক ও রাজশাহী মহানগর বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট শফিকুল হক মিলন, জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সদস্য এ্যাডভোকেট জামিল আকতার এলাহী, এ্যাডভোকেট এরশাদ আলী ঈশা, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও পাবনা আইনজীবী ফোরাম বার সমিতির খন্দকার মাকসুদুর রহমান মাসুদ, কেন্দ্রীয় কমিটি সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী ফোরামের সদস্য এ্যাডভোকেট মাহমুদুল আরেফিন স্বপন, কেন্দ্রীয় কমিটির বগুড়ার সদস্য এ.কে.এম সাইফুল ইসলাম, বগুড়ার কাহালু বিএনপি’র আহবায়ক ও জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য গোলাম আকতার জাকির। এচাড়াও রাজশাহী বিভাগের আটটি জেলার সকল বারের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


এ সম্পর্কিত আরো খবর

জাতীয় এর অন্যান্য খবরসমূহ