রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ছোট-খাট বিষয়ে অহরহ ব্যবহার করছে আগ্নেয়াস্ত্র

রাজশাহী, ৩ অক্টোবর (খবর তরঙ্গ ডটকম)- রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) বিবাদমান ছাত্রসংগঠনগুলো প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে এবং ছোট-খাট বিষয়ে অহরহ ব্যবহার করছে আগ্নেয়াস্ত্র। সামান্য কোনো ঘটনা নিয়েই ঘটছে গুলিবর্ষণের ঘটনা।এ ব্যাপারে সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থাই গ্রহণ করছে না প্রশাসন। তবে পুলিশের দাবি, দোষীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, পুলিশ প্রশাসনের নতজানু ভূমিকা আর বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের দুর্বলতার কারণে ছাত্রসংগঠনগুলোর ক্যাডাররা ক্যাম্পাসে অস্ত্র নিয়ে খেলা করছে। পুলিশের সামনে দিয়ে অস্ত্র নিয়ে ঘুরে বেড়ালেও পুলিশ কিছুই বলছে না। ফলে দিন দিন উৎসাহিত হচ্ছে ক্যাডাররা।

অস্ত্রের ব্যবহার এখন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিত্যনৈমত্তিক ঘটনা। গত ২ অক্টোবর ছাত্রলীগ ও শিবিরের মধ্যে সংঘর্ষের সময় পুলিশ সামনে গুলি ছোঁড়ার দৃশ্য সকলকে নতুনভাবে ভাবিয়ে তুলেছে। পুলিশের সামনে শত শত রাউন্ড গুলি ছোঁড়া হলেও নীরব থাকতে হয়েছে এই আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে। এতে আতঙ্কে রয়েছেন সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।