আগামী রবিবার সারা দেশে জামাতের সকাল-সন্ধ্যা হরতাল

জামায়াতে ইসলামী দলের সহকারী সেক্রেটারি মুহাম্মাদ কামারুজ্জামানের মৃত্যুদণ্ডের রায়কে ‘হত্যা’ উল্লেখ করে এর প্রতিবাদে আগামী রবিবার সারা দেশে সকাল-সন্ধ্যা হরতাল ডেকেছে ।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় গণমাধ্যমে পাঠানো বিবৃতিতে এই কর্মসূচির ঘোষণা দিয়েছেন জামায়াতের ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা রফিকুল ইসলাম খান।

কেন্দ্রীয় প্রচার বিভাগের মো. ইব্রাহিম স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে রফিকুল ইসলাম খান বলেন, ‘জামায়াতে ইসলামীকে নির্মূল করার উদ্দেশ্যে জামায়াতে ইসলামীর নেতৃবৃন্দকে হত্যা করার জন্য এ রায় দেয়া হয়েছে। রাজনৈতিক প্রতিহিংসা চরিতার্থ করার উদ্দেশ্যে ট্রাইব্যুনাল কর্তৃক প্রদত্ব এ রায় দেশবাসী ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করছে।’

‘সরকার মুহাম্মদ কামারুজ্জামানকে হত্যার উদ্দেশ্যে বিচারের নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে ফাঁসির আদেশ দেয়ার সরকারি চক্রান্ত বাস্তবায়নের প্রতিবাদে আমি আগামী ১২ মে রবিবার দেশব্যাপী সকাল-সন্ধ্যা সর্বাত্মক হরতাল পালনের কর্মসূচি ঘোষণা করছি’, যোগ করেন তিনি।

একই সঙ্গে জামায়াতের এই ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি জেনারেল হরতাল কর্মসূচি সফল করতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান।

রায়কে রফিকুল ইসলাম খান ন্যায়ভ্রষ্ট ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে অভিযোগ করেন। বলেছেন, ‘স্কাইপ কেলেঙ্কারির সঙ্গে সম্পৃক্ত বিচারক নিজামুল হক নাসিম এই মামলার অভিযোগপত্র গঠন করেছেন। এইসব কারণে ট্রাইব্যুনাল প্রদত্ত রায়টি প্রশ্নবিদ্ধ, বিতর্কিত ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত।’

জামায়াতের ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি জেনারেল কামারুজ্জামানের বিরুদ্ধে রায়কে সরকার নির্দেশিত ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে অভিযোগ করেছেন। এ রায়ের মাধ্যমে ন্যায়বিচারকে হত্যা করা হয়েছে। রায়ে আন্তর্জাতিক আইন ও বিচারের মূলনীতি সম্পূর্ণভাবে উপেক্ষা করা হয়েছে বলেও দাবি করেন তিনি।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার দুপুরে বিচারক ওবায়দুল হাসানের নেতৃত্বে তিন সদস্যের দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল কামারুজ্জামানের ৭টি অভিযোগের মধ্যে ৫টি প্রমাণিত হওয়ায় ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ডের রায় দেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।