জামায়াতের হরতাল: ব্যাপক সহিংসতার মধ্য দিয়ে চলছে, নিহত ৪

আব্দুল কাদের মোল্লার মৃত্যুদণ্ডের প্রতিবাদে জামায়াতে ইসলামীর ডাকা সকাল-সন্ধ্যার হরতালে লালমনিরহটের পাটগ্রামে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষে উপজেলা শিবির সভাপতিসহ তিনজন ও শিবিরকর্মীদের হামলায় এক আওয়ামী লীগ কর্মী নিহত হয়েছেন। রোববার সকালে উপজেলার শরেয়ার বাজারে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- পাটগ্রাম উপজেলা ইসলামী ছাত্র শিবিরের সভাপতি মনিরুল ইসলাম (২৫) ও শিবিরকর্মী আব্দুর রহিম (২৪), সাজু (২১) ও আওয়ামী লীগ কর্মী মিন্টু (৩৩)।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সকালে হরতালের সমর্থনে উপজেলার শরেয়ার বাজার নামক স্থানে জামায়াত-শিবির কর্মীরা বিক্ষোভ মিছিল বের করে ভাঙচুর চালায়। এ সময় তারা শহরে ঢোকার চেষ্টা করলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী বাধা দেয়। হরতাল সমর্থকরা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে লক্ষ্য করে ককটেল ছুড়লে সংঘর্ষের সৃষ্টি হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে কয়েক রাউন্ড গুলি ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে। এতে গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই দুইজন মারা যায়। গুলিবিদ্ধ অবস্থায় মনিরুলকে হাসপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। পরে শিবির কর্মীদের হামলায় নিহত হন আওয়ামী লীগ কর্মী মিন্টু।

পাটগ্রাম থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সোহরাব হোসেন জানান, জামায়াত-শিবির কর্মীরা হরতালে ট্রাকসহ যানবাহন ভাঙচুর করে নাশকতা সৃষ্টিকালে পুলিশ বাধা দিলে তারা পুলিশ ও বিজিবিকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল, ককটেল ও বোমা ছোড়ে। পুলিশ আত্মরক্ষার্থে শর্টগানের গুলি ও টিয়ারশেল ছোড়ে।

এ ঘটনায় উপজেলাজুড়ে থমথমে বিরাজ করছে। পরিস্থিতি স্থিতিশীল রাখতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অতিরিক্ত সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।