নৌকা পুলিশের সহযোগিতায় তীরে ভিড়েছে: স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্র্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, “প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নৌকা ঠিকমতো তীরে ভেড়াতে পুলিশ বাহিনী সুযোগ করে দিয়েছে। এ জন্য তারা ধৈর্যের পরিচয় দিয়েছে। আমাদের সরকারের গত মেয়াদে যে রাজনৈতিক সহিংসতা হয়েছে তা পুলিশ বাহিনী নিষ্ঠার সঙ্গে রুখে দিয়েছে।”

শনিবার রাতে রাজধানীর রাজারবাগ পুলিশ লাইন্স টেলিকম মিলনায়তনে পুলিশ সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশনের ৩৪তম বার্ষিক সাধারণ সভায় তিনি এসব কথা বলেন। এতে সভাপতিত্ব করেন অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডিএমপি কমিশনার বেনজির আহমেদ।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম, বিশেষ অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর অর্থনৈতিক উপদেষ্টা ড. মসিউর রহমান ও পুলিশ মহাপরিদর্শক (আইজিপি) হাসান মাহমুদ খন্দকার।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে আলাদা পুলিশ ডিভিশন করা, আবাসন সুবিধা বাড়ানো, ক্যাডার পদ ২ থেকে ৫ শতাংশে উন্নীত করা, বাহিনীতে আরো আটটি কর্মকর্তা পদকে বি গ্রেড থেকে এ গ্রেডে উন্নীত করা, হাইওয়ে পুলিশের জনবল, অফিস ও যানবাহন বৃদ্ধি করাসহ বিভিন্ন দাবি তুলে ধরেন বেনজির আহমেদ।

স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল এমপি বলেন, “প্রধানমন্ত্রী পুলিশ বাহিনীতে ব্যয়কে বিনিয়োগ বলে মন্তব্য করেছেন। এর কারণ হলো পুলিশে বিনিয়োগ হলে দেশ ও জনগণ সুফলভোগী হবে। পুলিশ বাহিনীর যৌক্তিক দাবিগুলো পর্যায়ক্রমে বাস্তবায়ন করা হবে।”

এইচ টি ইমাম বলেন, “সরকার কাউন্টার টেরোরিজম ব্যুরো করার জন্য কাজ করছে। রাজশাহী ও সাতক্ষীরায় দুষ্কৃতকারীদের তাণ্ডব কঠোরভাবে দমন করেছে পুলিশ। দেশের উন্নয়নের জন্য নিরাপত্তা এবং আইনের শাসন প্রতিষ্ঠায় পুলিশ বাহিনীর আধুনিকায়ন জরুরি। পুলিশ সরকারের একটি অঙ্গ বলে তাদের সার্বক্ষণিক আধুনিকায়ন অব্যাহত রাখতে হবে।”

ড. মসিউর রহমান বলেন, “দেশ ও জনগণকে নিরাপত্তা দিতে পুলিশ বাহিনী নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। বর্তমান সরকার পুলিশ বাহিনীর কল্যাণে অনেক কিছু করেছে এবং তা অব্যাহত থাকবে।”

আইজিপি হাসান মাহমুদ খন্দকার বলেন, “দেশ ও জনগণের নিরাপত্তায় গত এক বছরে ১৭ জন পুলিশ সদস্য নিহত হয়েছেন। ৪০০ জন গুরুতর আহত এবং ২৮০০ জন আহত হয়েছে। নানান সীমাবদ্ধতা এবং বিভিন্ন ঘাটতি সত্ত্বেও আমরা কাজ করে যাচ্ছি। পুলিশের যেসব বিভিন্ন অসুবিধা রয়েছে সেগুলো দ্রুত বাস্তবায়ন করা অত্যন্ত প্রয়োজন।”

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।