সবধরনের প্রস্তুতি চলছে, ঈদের পরই সরকার পতনের কর্মসূচি: খালেদা জিয়া

সব মতের দলগুলোর মধ্যে ঐক্য প্রতিষ্ঠায় কাজ চলছে জানিয়ে ঈদের পর সরকার পতনের কর্মসূচি ঘোষণা করার কথা জানিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া।

মঙ্গলবার রাজধানীর ইস্কাটনের লেডিসক্লাবে রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের সম্মানে লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টি-এলডিপি’র ইফতার মাহফিলে তিনি এ কথা বলেন।

ডান-বাম দেখার সময় নেই জানিয়ে খালেদা জিয়া বলেন, ‘এখন ছোট-বড় ও ডান-বাম দেখার সময় নেই। যারা দেশকে ভালোবাসেন এবং নিজেদের সন্তানদের ভবিষ্যৎ ভালো চান তাদেরকে দেশ রক্ষায় ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘অনেক দল আমাদের সঙ্গে আসবে। ইতোমধ্যে সাম্যবাদী দল আমাদের সঙ্গে যোগ দিয়েছে। অন্যরাও যোগ দিতে যোগাযোগ করছে।’

বিএনপি চেয়ারপারসন বলেন, ‘আমরাকাজ করছি। ঈদের পর কর্মসূচি দেয়া হবে। ওই কর্মসূচির মাধ্যমে অবৈধ সরকারকে বিদায় করা যাবে বলে আমরা বিশ্বাস করি। এজন্য নেতাকর্মীসহ দেশের সাধারণ মানুষ সবাইকে প্রস্তুত থাকতে হবে।’

এ সময় সরকারের প্রতি হুঁশিয়ার উচ্চারণ করে তিনি বলেন, ‘বন্দুকের জোরে আজীবন ক্ষমতায় থাকেবন না, একদিন ক্ষমতা ছাড়তেই হবে। তখন এই বন্দুকই আপনাদের বিরুদ্ধে যাবে।’

আবারো র‌্যাব বিলুপ্তির দাবি জানিয়ে সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘র‌্যাব যতদিন থাকবে ততদিন গুম-খুনও থাকবে। তারা আগে ভালো থাকলেও এখন টাকার বিনিময়ে মানুষ হত্যার মতো কাজ করছে।’

তিনি বলেন, ‘এই রমজান মাসে আল্লাহ দোয়া কবুল করেন। আসুন আমরা আল্লাহর কাছে দোয়া করি আল্লাহ যেন এই জালেম সরকারের হাত থেকে দেশ এবং দেশের জনগণকে রক্ষা করেন।’

এলডিপি চেয়ারম্যান কর্নেল (অব.) অলি আহমদের সভাপতিত্বে এতে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, তরিকুল ইসলাম, এমকে আনোয়ার, ভাইস চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল (অব.) আলতাফ হোসেন, জাগপা সভাপতি শফিউল আলম প্রধান, বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান মেজর জে. (অব.) সৈয়দ মুহাম্মদ ইব্রাহিম, জামায়াতের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য রেদোয়ান উল্লাহ শাহেদী ও মাওলানা আবদুল হালিম, এনডিপি চেয়ারম্যানর খন্দকার গোলাম মোর্তুজা, ন্যাপ চেয়ারম্যানর জেবেল রহমান গনী, লেবার পার্টি চেয়ারম্যান ডা. মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, এলডিপি মহাসচিব ড. রেদোয়ান আহমেদ প্রমুখ।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।