কিশোরগঞ্জে উদ্দেশে রওনা হয়েছেন খালেদা জিয়া

অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের দাবিতে দেশব্যাপী গণসংযোগ কর্মসূচির অংশ হিসেবে বুধবার বিকেলে কিশোরগঞ্জের গুরুদয়াল সরকারি কলেজ মাঠে ২০-দলীয় জোটের জনসভায় ভাষণ দেবেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। এতে সভাপতিত্ব করবেন জেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও জনসভা সমন্বয় কমিটির আহ্বায়ক শরীফুল আলম।

 

কিশোরগঞ্জের উদ্দেশে রওনা হয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। গুলশানের বাসভবন থেকে তিনি বেলা পৌনে ১১টার দিকে রওনা হন। বিএনপি চেয়ারপারসনের গাড়িবহর গুলিস্তান হানিফ ফ্লাইওভার,  যাত্রাবাড়ী, কাঁচপুর ব্রিজ, রূপগঞ্জ, নরসিংদী, ভৈরব হয়ে কিশোরগঞ্জ সার্কিট হাউজে পৌঁছাবে।

 

এদিকে, মঞ্চ তৈরিসহ জনসভার প্রস্তুতি প্রায় সম্পন্ন। সার্বিক প্রস্তুতি পরিদর্শন করেছেন জনসভার সমন্বয়ের দায়িত্ব থাকা বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ড. ওসমান ফারুক।

 

বিএনপি নেত্রীকে স্বাগত জানাতে ভৈরব-কিশোরগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কের ৫৬ কিলোমিটার পথসহ জেলা শহরের ভেতরে অন্তত সাড়ে ৬০০ তোরণ নির্মাণ করা হয়েছে। এসব তোরণে খালেদা জিয়াকে শুভেচ্ছা জানানোর পাশাপাশি নেতাদের ব্যক্তিগত পরিচয় উল্লেখ করা হয়েছে।

 

নরসিংদীর রুটে কিশোরগঞ্জ জেলায় পৌঁছাবেন খালেদা জিয়া। সেখানে পৌঁছে সার্কিট হাউজে বিশ্রাম নেবেন তিনি। এরপর দুপুরের খাওয়া-দাওয়া শেষে বিকেলে তিনটার পরে সমাবেশে যোগ দেবেন তিনি।

 

নির্দলীয়-নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে সারা দেশ সফরের অংশ হিসেবে খালেদা জিয়া কিশোরগঞ্জ যাচ্ছেন। এর আগে একই দাবিতে খালেদা জিয়া ব্রাহ্মণবাড়িয়া, জামালপুর, নীলফামারী ও নাটোরে ২০–দলীয় জোটের সমাবেশে যোগ দিয়েছেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।