হরতাল-অবরোধে ক্ষত-বিক্ষত বাংলাদেশের অর্থনীতি, প্রাণহানি শতাধিক

‘‘২০ দলীয় জোটের ডাকা হরতাল-অবরোধে এ পর্যন্ত শতাধিক লোকের প্রাণহানি হয়েছে। প্রায় ১২শ গাড়ি পোড়ানো হয়েছে। বিরোধী দল ও সরকারের মধ্যে আপসহীন মনোভাবের কারণে বাংলাদেশে চরম রাজনৈতিক সংকট দেখা দিয়েছে। এ পরিস্থিতিতে সংকট সমাধানে জাতিসংঘ ও যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে আলোচনার আহ্বান জানানো হলেও সরকারের পক্ষ থেকে কোনো কার্যকরী পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে না।

 

অন্যদিকে বাংলাদেশে রক্তক্ষয়ী অবরোধ ও হরতালের কারণে ক্ষত-বিক্ষত হয়ে পড়েছে অর্থনীতি। কমেছে রফতানি। তৈরি পোশাক খাতে বিপর্যয় দেখা দিচ্ছে। বিদেশী ক্রেতারা মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছেন। তারা শান্তিপূর্ণ অন্য দেশগুলো থেকে পোশাক তৈরির ব্যাপারে আগ্রহী হয়ে উঠেছেন।’’ কাতারভিত্তিক আলজাজিরার প্রতিবেদনে এসব কথা বলা হয়েছে। শুক্রবার আলজাজিরার অনলাইন ভার্সনে তাদের প্রতিবেদনের শিরোনাম ছিল ‘ব্লাডি ব্লকেড ক্রিপলস বাংলাদেশ ইকোনমি’।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত অর্থবছরের চেয়ে বাংলাদেশের রফতানি আয় ৩০ থেকে ৪০ শতাংশ কমেছে। গত জানুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত দেশের অর্থনীতিতে ২ হাজার ১৭০ কোটি ডলার ক্ষতি হয়েছে।

 

প্রতিবেদনে বলা হয়, ৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত একতরফা নির্বাচনের প্রতিবাদে ২০ দলীয় জোট গণতন্ত্র হত্যা দিবস পালন করতে চাইলে সরকারের পক্ষ থেকে বাধা দেয়া হয়। এ নিয়ে খালেদা জিয়ার নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের ডাকে দেশব্যাপী অনির্দিষ্টকালের জন্য অবরোধ কর্মসূচি আহ্বান করা হয়।

 

এর সঙ্গে থেমে থেমে চলে হরতাল। এ অবস্থায় অর্থনীতিতে রক্তক্ষরণ হচ্ছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।