নিরাপত্তা পেলে ৫ এপ্রিল আদালতে যাবেন খালেদা

সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি খন্দকার মাহবুব হোসেন বলেছেন, পর্যাপ্ত নিরাপত্তা পেলে ৫ এপ্রিল দুর্নীতি দুই মামলায় হাজিরা দিতে বকশিবাজারের বিশেষ আদালতে যাবেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। সুপ্রিম মকোর্ট আইনজীবী সমিতির নিজ চেম্বারে বৃহস্পতিবার দুপুরে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

 

খন্দকার মাহবুব বলেন, ‘খালেদা জিয়া সবসময় আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তিনি আদালতে যেতে চান। আর পর্যাপ্ত নিরাপত্তা পেলে তিনি অবশ্যই আদালতে যাবেন। সরকারের দায়িত্ব তাকে নিরাপত্তা দেওয়া। কেননা এর আগে আদালতে যাওয়ার সময় তার গাড়িবহরের উপর হামলা করা হয়েছিল।’ ‘ওই মামলায় অনাস্থার দুটি আবেদন হাইকোর্টে শুনানির অপেক্ষায় রয়েছে। খালেদা জিয়া গুলশান কার্যালয় থেকে বের হলে তাকে আর ভিতরে ঢুকতে দেওয়া হবে না বা তাকে জনবিচ্ছিন্ন করা হতে পারে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করেন এ প্রবীণ আইনজীবী।

 

খালেদা জিয়ার এ আইনজীবী বলেন, ‘এ মামলা দুটি সম্পূর্ণ রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। আমরা চ্যালেঞ্জ করে বলছি একটি টাকাও আত্মসাৎ করা হয়নি। আর পুলিশ যে চার্জশিট দিয়েছে সেখানেও আত্মসাতের কথা বলা হয়নি। আত্মসাতের প্রচেষ্টার কথা বলা হয়েছে।’ গত ৩ জানুয়ারি থেকে গুলশান কার্যালয়ে অবস্থান করছেন খালেদা জিয়া। এর মধ্যে তিনি একবারের জন্যও বের হননি।

 

৫ এপ্রিল বকশিবারের বিশেষ আদালতে দুর্নীতি দমন কমিশনের দায়ের করা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায়  খালেদা জিয়ার হাজিরার দিন ধার্য রয়েছে। এ মামলায় সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে গ্রেপ্তারের আদেশ দিয়েছে আদালত।  তার গ্রেপ্তারি পরোয়ানা এখনো বহাল আছে।

 

খালেদার আইনজীবীরা গ্রেপ্তারি পরোয়ানা বাতিলের আবেদন জানালে তা নিয়ে ৫ এপ্রিল শুনানির আদেশ দেয় আদালত।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।