প্রতিবাদ করার আগেই থানায় মামলা তৈরি করে রাখা হয়

বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, বাকস্বাধীনতা মানেই রাষ্ট্রদ্রোহীতা। তাই শেখ হাসিনা রাজনৈতিক শিষ্টাচার বহির্ভূত বক্তব্য দিলেও আমরা তার প্রতিবাদ করতে পারবো না। প্রতিবাদ করার আগেই সরকার আমাদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা তৈরি করে রাখা হয়।

 

বৃহস্পতিবার দুপুরে নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচে স্বেচ্ছাসেবক দল আয়োজিত এক দোয়া ও মিলাদ মাহফিলে তিনি এসব কথা বলেন।

 

বিএনপির শীর্ষ নেতাদের প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের সমালোচনা করে  রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য প্রমাণ করে তিনি কী ধরনের রুচির মানুষ। কী নীতি তিনি ধারণ করেন। অথচ প্রধানমন্ত্রীর কুরুচি বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় বিএনপি চেয়ারপারসন কুরুচি বক্তব্যে দেননি। এতে আরো প্রমাণ হয়, বিএনপি কী নীতিতে বিশ্বাস করে।’

 

তারেক রহমান জাতীয় ও আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্রের শিকার মন্তব্য করে রিজভী বলেন, ‘তারেক জিয়া জনগণের মনে আরেক জিয়া হিসাবে স্থান করে নিয়েছিল। তাই জাতীয় রাজনীতি ও জিয়াউর রহমানের চেতনা ধ্বংস করতেই খালেদা জিয়া এবং তারেক রহমানের বিরুদ্ধে চক্রান্ত শুরু হয়েছে।’

 

তারেক রহমানের সুস্বাস্থ্য কামনায় কোরআন তেলাওয়াত অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া মাহফিল পরিচালনা করেন ওলামা দলের সভাপতি এম এ মালেক।

 

আয়োজক সংগঠনের সিনিয়র সহ-সভাপতি মনির হোসনের সভাপতিত্বে দোয়া মাহফিলে বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ, সহ-দপ্তর সম্পাদক আব্দুল লতিফ জনিসহ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।