গুলিস্থানে চলছে ত্রিমুখী সংঘর্ষ

হেফাজতে ইসলামের নেতাকর্মীরা ঢাকা অবরোধের অংশ হিসেবে  গুলিস্তানে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের অফিসে হামলা চালিয়েছে। এ সময় আওয়ামী লীগের কর্মী এবং পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে হেফাজতের কর্মীরা। ওই এলাকায় ত্রিমুখী সংঘর্ষ চলছে। সংঘর্ষ থামাতে পুলিশ ইতোমধ্যে শতাধিক রাউন্ড টিয়ারশেল, ফাঁকা গুলি ও সাউন্ড গ্রেনেড নিক্ষেপ করেছে। এতে ৫০ জন গুলিবিদ্ধসহ বহু আহত হয়েছে। পুরো এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। বিপুলসংখ্যক র‌্যাব ও পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দুপুর দেড়টার দিকে হেফাজতের একটি মিছিল গুলিস্তান দিয়ে যাওয়ার সময় বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ের আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে ইট-পাটকেল ছুড়ে মারে। এ সময় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা তাদের ধাওয়া করে একজনকে আটক করে বেদম পিটুনি দেয়।

এরপর তাকে পুলিশে সোপর্দ করে। এই খবর হেফাজতের নেতাকর্মীদের কাছে পৌঁছে গেলে তারা বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ের দিকে এগোতে থাকে। এরপর ফের সংঘর্ষ শুরু হয়। সর্বশেষ পৌনে ২টার দিকে ছাত্রলীগ, যুবলীগের নেতাকর্মীদের সঙ্গে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামের কাছে সংঘর্ষ চলছে।

এরই মধ্যে দুপুর ২টার দিকে বায়তুল মোকাররম মসজিদ এলাকায় দুটি মোটর সাইকেলে আগুন দেয় হেফাজতের কর্মীরা। পুলিশের গুলিতে সময় টিভির সাংবাদিক সাইফুল রুদ্র এবং মোহনা টিভির নাসির উদ্দিন আহত হয়েছেন।

সংঘর্ষের ঘটনায় পল্টন এলাকা থেকে অন্তত ৫০ জনকে আটক করেছে।


সম্পাদনা: শামীম ইবনে মাজহার,নিউজরুম এডিটর

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।