জামায়াতের সারা দেশে সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলছে

ঢাকা, ৪ ডিসেম্বর (খবর তরঙ্গ ডটকম)- নারায়ণগঞ্জ, রাজশাহী, সিলেটসহ বিভিন্ন স্থানে পুলিশের সঙ্গে জামায়াতে ইসলামী কর্মীদের বিক্ষিপ্ত সংঘর্ষের মধ্য দিয়ে মঙ্গলবার সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলছে সারা দেশে। যুদ্ধাপরাধে অভিযুক্ত শীর্ষনেতাদের মুক্তি এবং সমাবেশের অনুমতি না দেয়াসহ বিভিন্ন দাবিতে জামায়াতে ইসলামী সোমবার দুপুরে এই হরতাল ডাকে। তাদের প্রধান শরিক বিএনপিও এই হরতালে নৈতিক সমর্থন দিয়েছে।

এদিকে, হরতাল ঠেকাতে রাজধানীতে ব্যাপক নিরাপত্তা নিয়েছে প্রশাসন। ভোর থেকেই প্রতিটি সড়ক এবং সড়কের মোড়ে বিপুল সংখ্যক পুলিশ ও র‍্যাব সদস্য মোতায়েন থাকতে দেখা গেছে। পাশাপাশি সাদা পোশাকে মাঠে রয়েছে বিপুল সংখ্যক পুলিশ।

তবে এর মধ্যেও রাজধানীর কারওয়ান বাজার, তেজগাঁও, যাত্রাবাড়ী ও শ্যাওড়াপাড়ায় ঝটিকা মিছিল বের করে বেশ কয়েকটি গাড়ি ভাঙচুর করেছে হরতাল সমর্থকরা। বিভিন্ন স্থানে সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ সৃষ্টি করে তারা।

হরতালের আগের দিনে রাজধানীতে কয়েকটি বাসে অগ্নিসংযোগ ও ভাঙচুরের কারণে রাস্তায় যাত্রীবাহী বাস ও সিএনজির সংখ্যা খুবই কম। নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে বিশেষ কাজ ছাড়া ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়েও লোকজন তেমন বের হয়নি।

পিকেটিংয়ের ভয় নিয়ে রাজধানীতে কিছু বাস চলাচল করলেও টার্মিনাল থেকে দূরপাল্লার কোনো বাস ছেড়ে যায়নি। তবে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে।

এছাড়া, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেটের টুকের বাজার, নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ ও টঙ্গীতেও পুলিশের সঙ্গে জামায়াত-শিবির কর্মীদের বিক্ষিপ্ত সংঘর্ষ ও গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় বেশ কয়েকজন আহত হয়।

দলের শীর্ষ নেতাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও মুক্তি, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে জাতীয় নির্বাচন, নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধ, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির চরম অবনতি এবং শান্তিপূর্ণ সমাবেশ করতে না দেয়ার প্রতিবাদে মঙ্গলবার দেশব্যাপী সকাল-সন্ধ্যা হরতালের ডাক দেয় জামায়াত।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।