নিখোঁজ হওয়ার ঠিক আগে বিমানের কো-পাইলটের ফোন করার চেষ্টা!

কুয়ালালামপুর: এমএইচ ৩৭০-র কো-পাইলট ফারিক আবদুল হামিদ বিমানটি নিখোঁজ হওয়ার ঠিক আগে কোনো একজনের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেন৷ কিন্তু সেই সময় বিমানটি টেলিকম টাওয়ার থেকে খুব দ্রুত সরে যেতে থাকায় এই চেষ্টা বিফল হয়।

নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক তদন্তকারীদের উদ্ধৃত করে শনিবার এ খবর জানিয়েছে ‘দ্য নিউ স্ট্রেটস টাইমস’ সংবাদপত্র। ফোনটি যাকে করার চেষ্টা হয়েছিল তার পরিচয় জানা যায়নি।

দৈনিকটি প্রতিবেদনে আরো জানিয়েছে, সেই সময় বিমানটি মালয়েশিয়ার পশ্চিম উপকূলে, পেনাং দ্বীপের কাছে খুব নিচু দিয়ে যাচ্ছিল। এর ফলেই টেলিকম টাওয়ারটি কো-পাইলটের ফোন সঙ্কেত ধরতে পারে। মালয়েশিয়ার পরিবহণ মন্ত্রনালয় জানিয়েছে তারা দৈনিকটির প্রতিবেদন খতিয়ে দেখার পর মতামত দেবে।

অন্যদিকে, অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী টোনি অ্যাবট জানিয়েছেন, ব্ল্যাক বক্সের পাঠানো সঙ্কেতগুলি ক্রমেই দুর্বল হতে থাকায়, নিখোঁজ বিমানের তল্লাশি শেষ হতে অনেক দিন লাগতে পারে।

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা সম্ভাব্য অনুসন্ধান স্থলের সীমানা কমিয়ে এনেছি ঠিকই কিন্তু সমুদ্রের তলায় সাড়ে চার কিলোমিটার থেকে ১০০০ কিলোমিটারের মধ্যে বিস্তীর্ণ জায়গা জুড়ে বিমানের ধ্বংসাবশেষ অনুসন্ধান করা সহজসাধ্য নয়। সূত্র: ওয়েবসাইট।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।