লাকসামে পানিতে ডুবে ২ শিশুর মৃত্যু - খবর তরঙ্গ
শিরোনাম :

লাকসামে পানিতে ডুবে ২ শিশুর মৃত্যু



মোঃ আবুল কালাম, (খবর তরঙ্গ ডটকম)

কুমিল্লার লাকসামে বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) দুপুরে পানিতে ডুবে মোঃ আল আমিন নামে দেড় বছরের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। নিহত ওই শিশুটি উপজেলার গোবিন্দপুর ইউনিয়নের বেতিহাটি গ্রামের বাচ্চু মিয়ার একমাত্র ছেলে।


জানা গেছে, ওইদিন সকাল ১১টার দিকে শিশুটি সবার অলক্ষ্যে ঘর থেকে বেরিয়ে যায়। তাকে দেখেতে না পেয়ে পরিবারের লোকজন এদিক-সেদিক খোঁজাখুঁজি শুরু করে। কিছুক্ষণ পর বাড়ির সামনে একটি পুকুরে শিশুটির লাশ ভেসে উঠে। ওই সময় স্বজনরা তাকে উদ্ধার করে দ্রæত লাকসাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করেন।


ওই বাড়ির লোকজন জানায়, একটি ছেলের জন্য বাবা-মা দু’জনই অনেক ব্যকুল ছিলেন। অবশেষে অনেক বছর পর সৃষ্টিকর্তা তাদের কোলজুড়ে একটি ছেলে দিলেন। কিন্তু বিধিবাম! তা আবার কেড়েও নিলেন। এখন একমাত্র ছেলেকে হারিয়ে শোকে মা বিলাপ করতে করতে বার বার মুর্ছা যান। আর বাবা অনেকটা বাকরুদ্ধ। ওইদিন বাদ জোহর বেতিহাটি দক্ষিণপাড়া বায়তুশ শরফ জামে মসজিদ মাঠে জানাযা অনুষ্ঠান শেষে শিশুটির মরদেহ মসজিদের পাশে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।


অপরদিকে, নানার বাড়িতে বেড়াতে গিয়ে কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার বাইশগাঁও ইউনিয়নে পানিতে ডুবে সুরাইয়া আক্তার নামে দেড় বছরের একটি শিশুর মৃত্যু হয়েছে। সে কেয়ারি গ্রামের মোশারফ হোসেনের মেয়ে। জানা গেছে, গত দু’দিন আগে শিশুটির মা তাকে নিয়ে তার নানার বাড়ি পার্শ্ববর্তী বাইশগাঁও গ্রামে বেড়াতে যায়। বুধবার (১ জুলাই) সকালে খেলতে গিয়ে শিশু সুরাইয়া পুকুরের পানিতে ডুবে যায়। খোঁজাখুজির পর পরিবারের সদস্যরা সকাল ১০টায় পুকুর থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করে। পরে তার লাশ গ্রামের বাড়িতে এনে দাফন করা হয়। শিশুটির মৃত্যুতে পরিবারসহ ওই গ্রামের শোকের ছায়া নেমে আসে।


পূর্বের সংবাদ